খুলনায় চিকিৎসক ধর্মঘটে রোগীদের চরম-332615 | খবর | কালের কণ্ঠ | kalerkantho

kalerkantho

শুক্রবার । ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৬। ১৫ আশ্বিন ১৪২৩ । ২৭ জিলহজ ১৪৩৭


খুলনায় চিকিৎসক ধর্মঘটে রোগীদের চরম দুর্ভোগ

খুলনা অফিস   

৬ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



খুলনা জেনারেল হাসপাতালে দুই দিন ধরে চিকিৎসকের জন্য অপেক্ষা করছেন বাগেরহাটের শরণখোলার বাসিন্দা লুত্ফর রহমান। মস্তিষ্কে রক্তরক্ষণজনিত অসুস্থতা নিয়ে তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। প্রয়োজনীয় পরীক্ষাও করিয়েছেন; কিন্তু চিকিৎসা পাচ্ছেন না।

এ ধরনের রোগীর যে জরুরি চিকিৎসা দরকার, সেটাই মরিয়া হয়ে বোঝাতে চাইলেন লুত্ফর রহমানের সঙ্গে আসা তাঁর মেয়ের জামাই মো. আসাদুজ্জামান। হতাশ হয়ে তিনি বলেন, ‘কী করব কিছুই বুঝে উঠছে পারছি না। রোগীকে দূরে নেওয়ার অবস্থা নেই। আমরা এ পরিস্থিতি থেকে বাঁচতে চাই।’

শুধু লুত্ফর রহমানই নন, এ হাসপাতালে ভর্তি পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলার রঘুনাথপুর গ্রামের আব্দুর রশিদ, বরিশালের বাসিন্দা আতাহার আলীসহ আরো কয়েকজন রোগী তাঁদের দুর্ভোগের কথা জানালেন।

তিন দিন ধরে চিকিৎসকদের ধর্মঘটে কার্যত খুলনা জেলার সরকারি-বেসরকারি সব ধরনের চিকিৎসাসেবাই বন্ধ রয়েছে। জেলার তেরখাদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার ডা. আবদুল্লাহ আল মামুনের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার দাবিতে পেশাজীবী চিকিৎসকদের সংগঠন বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন গত বৃহস্পতিবার থেকে ধর্মঘট পালন করছে। তাদের সঙ্গে যোগ দিয়েছে প্রাইভেট মেডিক্যাল প্রাকটিশনার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিপিএমপিএ) ও প্রাইভেট ক্লিনিক অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিপিসিডিওএ)।

গতকাল শনিবার এই দাবিতে চিকিৎসকরা খুলনা বিএমএ কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছেন। সেখানে তাঁরা আজ রবিবারের মধ্যে হামলাকারী আওয়ামী লীগ নেতা এস এম ওয়াহিদুজ্জামানের গ্রেপ্তার দাবি করেছেন। অন্যথায় তাঁরা আরো কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করবেন বলে হুঁশিয়ার করেছেন।

বিএমএ খুলনার সভাপতি ডা. শেখ বাহারুল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য দেন চিকিৎসক নেতা মেহেদী নেওয়াজ, আনোয়ারুল আজাদ, গাজী মিজানুর রহমান, শওকত আলী লস্কর, বঙ্গকমল বসু, মনোজ কুমার বসু, শেখ হাসান প্রমুখ।

অন্যদিকে তেরখাদা উপজেলা আওয়ামী লীগের একাংশের নেতারা চিকিৎসকের ওপর হামলাকারী এস এম ওয়াহিদুজ্জামানসহ অন্যদের দল থেকে বহিষ্কারের দাবি জানিয়েছেন। তাঁরা বলেছেন, চিকিৎসকের ওপর হামলা এবং এর প্রতিবাদে অব্যাহত চিকিৎসক ধর্মঘটের কারণে দলের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হচ্ছে। গতকাল দুপুরে খুলনা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে তাঁরা এ দাবি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনান আওয়ামী লীগের খুলনা জেলা কমিটির সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান কালু। উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা শেখ শহিদুল ইসলাম, মোল্লা ইমদাদুল হক, মঞ্জুরুল আলম, এফ এম মফিজুল ইসলাম প্রমুখ।

মন্তব্য