বিরত থাকতে উকিল নোটিশ-331218 | খবর | কালের কণ্ঠ | kalerkantho

kalerkantho

শুক্রবার । ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৬। ১৫ আশ্বিন ১৪২৩ । ২৭ জিলহজ ১৪৩৭


ভাড়াটিয়ার তথ্য সংগ্রহ

বিরত থাকতে উকিল নোটিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



ঢাকা মহানগর এলাকায় ভাড়াটিয়াদের ব্যক্তিগত তথ্য সংগ্রহের কাজ থেকে পুলিশকে বিরত থাকার জন্য উকিল নোটিশ পাঠিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া। আইন ও স্বরাষ্ট্রসচিব, পুলিশের মহাপরিদর্শক এবং ঢাকা মহানগর কমিশনারের কাছে গতকাল মঙ্গলবার এ নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

নোটিশে বাড়ির মালিকদের মাধ্যমে ভাড়াটিয়াদের তথ্য সংগ্রহের আইনগত কী ভিত্তি আছে তা ২৪ ঘণ্টার মধ্যে লিখিতভাবে জানাতে বলা হয়েছে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে নোটিশের জবাব না পেলে আইনগত পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

ভাড়াটিয়াদের তথ্য সংগ্রহের জন্য ঢাকা মহানগর পুলিশ বাড়ি বাড়ি এক পৃষ্ঠার একটি ফরম পৌঁছে দিচ্ছে। এটি ভাড়াটিয়াদের পূরণ করতে বলা হচ্ছে। ফরমে ভাড়াটিয়ার ছবির পাশাপাশি তাদের জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বর, পাসপোর্ট নম্বর, ফোন নম্বর, জন্মতারিখসহ বাসায় কতজন সদস্য ও তাদের পরিচয়-সম্পর্ক এবং গৃহকর্মী ও গাড়িচালকের তথ্য চাওয়া হয়েছে। আগামী ১৫ মার্চের মধ্যে এ ফরম পূরণ করে জমা দিতে বলা হয়েছে।

এর বিরুদ্ধে উকিল নোটিশ পাঠানোর পর ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া গতকাল সাংবাদিকদের বলেন, সংবিধানে নাগরিকের ব্যক্তিগত গোপনীয়তা রক্ষার অধিকার দেওয়া হয়েছে। এভাবে ব্যক্তিগত তথ্য চাওয়ার আইনগত সুযোগ পুলিশের নেই। তা ছাড়া পুলিশ যেসব ব্যক্তিগত গোপনীয় তথ্য সংগ্রহ করছে, তা করার মতো প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ পুলিশের নেই। তাই এসব তথ্যের অপব্যবহার হওয়ার যথেষ্ট আশঙ্কা রয়েছে। একজন নাগরিকের ব্যক্তিগত তথ্য যদি কোনো ভুল ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের হাতে পড়ে, তাহলে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির ব্যক্তিগত নিরাপত্তা ক্ষুণ্ন হতে পারে। তিনি বলেন, ‘আইন মেনে চলা একজন নাগরিক হিসেবে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে আইনগত সহায়তা করতে আমি ইচ্ছুক। তবে যে সহায়তা তাঁরা চাইছেন তা তাঁদের আইনগত এখতিয়ারে পড়ে না।’

মন্তব্য