kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


রাজশাহীতে রেলের ৩৩ কোটি টাকার কাজ ভাগবাটোয়ারা

রফিকুল ইসলাম, রাজশাহী   

১ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



রাজশাহীতে রেলের ৩৩ কোটি টাকার কাজ ভাগবাটোয়ারা

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে রেল মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে হাইটেক পার্ক নির্মাণকাজের ৩৩ কোটি টাকার কাজ রাজশাহীতে ভাগবাটোয়ারা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গত রবিবার রাতে রাজশাহী নগর যুবলীগের এক নেতার ব্যক্তিগত কার্যালয়ে এই বিষয়ে সমঝোতা হয়।

তিন কোটি টাকা দিয়ে কাজটি পাওয়ার বিষয়ে নিশ্চিত হয় ঢাকার একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। এ কারণে গতকাল সোমবার এই কাজের দরপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিনে অন্য কোনো ঠিকাদার অংশ নিতে পারেনি।

জানতে চাইলে পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের প্রধান প্রকৌশলী মাহবুব হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘টেন্ডার যদি ভাগবাটোয়ারা হয়, তাহলে বাইরে হয়েছে। আমার এখানে কিছু হয়নি। তবে এর আগে অতিরিক্ত দর দেওয়ায়  টেন্ডারটি পুনরায় আহ্বান করা হয়েছিল। এবারও অতিরিক্ত অন্তত সাত ভাগ বেশি দর দেওয়া হয়েছে। ফলে কাজটির জন্য কার্যাদেশ দেওয়া হলে ঠিকাদারকে অন্তত দুই কোটি টাকা বেশি দিতে হবে। ’

রাজশাহী রেলওয়ে সূত্রে জানা গেছে, পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে প্রধান প্রকৌশলীর দপ্তর থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের শুরুতে গাজীপুরের কালিয়াকৈরে হাইটেক পার্ক নির্মাণের জন্য দরপত্র আহ্বান করা হয়। এরপর গত রবিবার পর্যন্ত মোট ২৩টি শিডিউল বিক্রি হয়। ২৩ জন ঠিকাদার ওই কাজ করার জন্য শিডিউল সংগ্রহ করে। তাদের মধ্যে ঢাকার কয়েকজন ঠিকাদারকে নিয়ে রবিবার রাতেই নিজের ব্যক্তিগত কার্যালয়ে বৈঠকে বসেন রাজশাহী মহানগর যুবলীগের শীর্ষ এক নেতা। সেখানে ‘ম্যাক্স অটোমোবাইল’ নামের ঢাকার একটি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের একজন প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন। ওই বৈঠকে তিন কোটি টাকার বিনিময়ে অন্য ঠিকাদারকে ‘ম্যানেজ’ করার বিষয়ে সমঝোতা হয়। এই টাকার একটি অংশ অবশ্য যুবলীগের সম্মেলনের জন্য রাখা হয়েছে বলে জানা গেছে।

আরো জানা গেছে, ওই বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী গতকাল শিডিউল জমা দেওয়ার শেষ দিনে মাত্র তিনটি শিডিউল জমা দেওয়া হয়। এতে ম্যাক্স অটোমোবাইল ৩৩ কোটি টাকার ওই কাজের জন্য সর্বনিম্ন দর দিয়েছে প্রায় ৩৫ কোটি টাকা। অন্য দুটি প্রতিষ্ঠান তমা এন্টারপ্রাইজ ও নূর-ই-এলাহী এন্টারপ্রাইজ দর দিয়েছে আরো বেশি। ফলে সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে এখন ম্যাক্স অটোমোবাইলকেই কাজ দিতে হবে রেলওয়েকে, যদি টেন্ডারটি বাতিল করে পুনরায় আহ্বান না করা হয়।

রেলওয়ে সূত্রে জানা গেছে, এর আগে গত ডিসেম্বরে রাজশাহী মহানগর যুবলীগের ওই নেতারা ঠিকাদারদের নিয়ে দরপত্রটি ভাগবাটোয়ারা করতে সহযোগিতা করেছিলেন। এর ফলে ওই সময় সর্বনিম্ন সাড়ে ৮ শতাংশ অতিরিক্ত দর দেওয়া হয়েছিল। তবে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ সেই দর গ্রহণ না করে নতুন করে দরপত্র আহ্বান করে।

রাজশাহীর একজন ঠিকাদার নাম প্রকাশ না করার শর্তে কালের কণ্ঠকে বলেন, এই টেন্ডারটি নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে কম দর দিলেও ঠিকাদার লাভ করবে। কিন্তু সেখানে ভাগবাটোয়ারা করে অতিরিক্ত দর দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে অন্য ঠিকাদারকেও ওই দরপত্রে অংশ না নিতে হুমকি দেওয়া হয় মহানগর যুবলীগের নেতাদের পক্ষ থেকে।

কাজ পেতে যাওয়া ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান ম্যাক্স অটোমোবাইলের একটি ঘনিষ্ঠ সূত্র জানিয়েছে, কাজটি পেতে মহানগর যুবলীগের কয়েকজন নেতাকে তাদের প্রায় তিন কোটি টাকা দিতে হবে। আগামী ৫ মার্চ মহানগর যুবলীগের সম্মেলনের জন্য ওই টাকাটি তাঁরা চেয়েছেন। সেই হিসাবে কাজ পেলে তাঁদের ওই টাকা দিতে হবে।

রাজশাহী মহানগর যুবলীগের একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছ, যুবলীগের সম্মেলনের নাম করে ওই কাজটি তিন কোটি টাকায় ম্যাক্সকে পাইয়ে দিতে সহায়তা করা হচ্ছে। তবে সম্মেলনের জন্য কিছু টাকা রেখে বাকি টাকা নেতারাই ভাগ করে নেবেন বলেও নিশ্চিত করেছে ওই সূত্রগুলো।

জানতে চাইলে রাজশাহী মহানগর যুবলীগের সভাপতি রমজান আলী কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘শুনেছি ওই টেন্ডারটিতে রাজশাহীর কোনো ঠিকাদারের কাজ করার ক্ষমতা নাই। তাই ঢাকার কয়েকজন ঠিকাদার অংশ নিয়েছে। এর বাইরে আমি কিছু জানি না। টেন্ডার ভাগবাটোয়ারায় কারা অংশ নিয়েছে, তাও জানি না। আর মহানগর যুবলীগের সম্মেলনের ওই টেন্ডারের টাকা রাখার বিষয়টিও সঠিক নয়। ’


মন্তব্য