kalerkantho

ভালো থাকুন

১৯ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



নবজাতকের জন্ডিস

জন্মের পর অনেক নবজাতকের জন্ডিস হতে পারে। একে ফিজিওলজিক্যাল জন্ডিস বলা হয়। শিশুর জন্মের পর চোখ, জিব বা ত্বক হলুদ মনে হলে এবং প্রস্রাবের রং হলুদ হলে দ্রুত চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে হবে। নবজাতকের জন্ডিসের কারণে এ রং হতে পারে। তবে জন্মের দু-তিন দিন পর জন্ডিস দেখা দিলে সাধারণত তা মারাত্মক হয় না, পাঁচ-ছয় দিন পর হলুদাভ ভাব এমনিতে চলেও যায়। কম জন্ম-ওজন বা স্বাভাবিক সময়ের আগে জন্ম নেওয়া শিশুদের এ ধরনের জন্ডিসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি। এ ছাড়া গর্ভকালীন প্রসূতির সংক্রমণ, জন্মের পর শিশুর রক্তে সংক্রমণ, মা ও নবজাতকের রক্তের ভিন্ন ভিন্ন গ্রুপ, শিশুর জন্মগত রোগ, যকৃৎ বা পিত্তথলিতে সমস্যা প্রভৃতি নবজাতকের জন্ডিসের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ বিষয়। শিশুর রক্তে বিলিরুবিনের মাত্রা পরিমাপের মাধ্যমে জন্ডিস নিশ্চিত হওয়া যায়।

বিলিরুবিন বেড়ে গেলে সাধারণত নবজাতককে ফটোথেরাপি বা আলোক-চিকিৎসা দেওয়া হয়। এ ছাড়া প্রতিদিন সকালে নবজাতককে আধাঘণ্টা রোদ পোহাতে দেওয়ার পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা। তবে কড়া রোদ এড়িয়ে চলতে হবে।

নবজাতককে নিয়মিত বুকের দুধ খাওয়াতে হবে।

 

ডা. মুনতাসীর মারুফ


মন্তব্য