kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


সহযোগিতার প্রস্তাবকে স্বাগত

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



জন কেরির বাংলাদেশ সফর বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। যে যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের স্বাধীনতার বিরোধিতা করে ভূমধ্যসাগরে সপ্তম নৌবহর পাঠিয়েছিল তারাই আজ বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বাংলাদেশের উন্নয়ন এবং সমৃদ্ধির প্রশংসা করছে।

ধানমণ্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরে গিয়ে স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। এটা আমাদের জন্য এক বিরাট অর্জন। জন কেরি তাঁর ভাষণে বাংলাদেশের বন্ধু হয়ে সন্ত্রাসবাদ নির্মূল এবং এ দেশের গোয়েন্দাদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন। এ ছাড়া বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনিদের বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর ব্যাপারে গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনার আশ্বাস দিয়েছেন। কাজেই এ কথা বলা যায় যে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরির বাংলাদেশ সফর আমাদের জন্য আগামী দিনে শুভবার্তা বয়ে আনবে। জঙ্গি-সন্ত্রাস একটি স্বাধীন-সার্বভৌম রাষ্ট্রের জন্য মারাত্মক হুমকিস্বরূপ। এদের আক্রমণে রাষ্ট্রে যেকোনো সময় দুর্যোগ ঘনিয়ে আসতে পারে। কাজেই জনগণের সমন্বিত প্রচেষ্টা ও প্রতিরোধের মাধ্যমেই এদের নির্মূল করা সম্ভব। তাই মার্কিন সহযোগিতাকে স্বাগত জানাই।

জাহাঙ্গীর কবীর পলাশ

শ্রীধরপুর, মুন্সীগঞ্জ।


মন্তব্য