kalerkantho


ট্রেনে হাইড্রোলিক হর্ন নয়

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



অনেক বছর ধরে ঢাকা-চট্টগ্রাম ট্রেনযোগে চলাচল করে আসছি। নিরাপদ, আরামদায়ক, সাশ্রয়ী ও হাইড্রোলিক হর্নের শব্দ নেই বলে নানা তিক্ত অভিজ্ঞতা সত্ত্বেও ট্রেনযাত্রা থেকে কখনো বিরত থাকিনি।

গত ২৩ ফেব্রুয়ারি বিকেল ৩টায় ঢাকার এয়ারপোর্ট স্টেশন থেকে সুবর্ণ এক্সপ্রেসে উঠে রাত সাড়ে ৯টার আগেই চট্টগ্রাম স্টেশনে পৌঁছে যাই, যা বিগত বছরগুলোতে ছিল কল্পনাতীত। গত মাসে চট্টগ্রাম থেকে গোধূলির যাত্রী হয়ে ঢাকায় আসি। তখন ট্রেনে ওঠে সদ্য সংযোজিত বগিসহ অন্যান্য অবকাঠামোতে নতুনত্বের ছাপ দেখি। যদিও বগিগুলোর আকার ছোট হওয়ায় যাত্রীসাধারণকে মাঝখানের করিডরে লাগেজ নিয়ে ওঠানামায় সমস্যায় পড়তে দেখেছি। কিন্তু গোধূলি ট্রেনটি চট্টগ্রাম স্টেশন ছাড়ার পর প্রতি মুহূর্তে হুইসেলের (হর্ন) গগনবিদারী শব্দে সেদিনের আরাম হারামে পরিণত হয়েছিল। এটা সংশ্লিষ্ট চালকের খামখেয়ালি নাকি অদক্ষতা, তা অনুসন্ধান করে কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়া উচিত বলে মনে করি।

 

সুভাষ কান্তি বড়ুয়া, সংস্কৃতিকর্মী, চট্টগ্রাম।


মন্তব্য