kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


প্রতি ওয়ার্ডে পাঠাগার চাই

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



পাঠ্যপুস্তকে ছাত্রছাত্রীরা এখন আনন্দ পায় না। সন্ধ্যা হলেই আশপাশের বাড়িতে শুনতে পাই স্কুল-কলেজের ছাত্রছাত্রীরা সজোরে আওয়াজ করে পড়া মুখস্থ করছে।

অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের মূল উদ্দেশ্য গ্রেড বা ভালো সার্টিফিকেট অর্জন করা, জ্ঞার্নাজন নয়। ফলে তারা  নিরানন্দ পাঠ্যপুস্তক নিয়েই সারা দিন পড়ে থাকে। পাঠ্যপুস্তকবহির্ভূত কোনো বইও তারা পড়ে না। ফলে ভালো সার্টিফিকেট অর্জন করলেও জ্ঞানে-গুণে তারা অনেক দুর্বল। উচ্চ গ্রেডের সার্টিফিকেট নিয়ে চাকরি না পেয়ে তারা বিভিন্ন অনৈতিক ও সমাজবিরোধী কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়ে। দেশকে ধনে-জ্ঞানে উন্নত করতে হলে আমাদের তরুণসমাজকে জ্ঞানের আলোয় আনতে হবে। তাদের মনের চোখ খুলে দিতে হবে। তাদের সৃজনশীল করে তুলতে হবে। এ জন্য প্রয়োজন সরকারিভাবে প্রতিটি ওয়ার্ডে পাঠাগার স্থাপন করা।   বইপড়ায় উৎসাহিত করার জন্য প্রতি সপ্তাহে বিভিন্ন আয়োজন ও পুরস্কারের ব্যবস্থা করা যেতে পারে। তাই প্রতিটি ওয়ার্ডে পাঠাগার স্থাপনের জন্য সরকারের দৃষ্টি আর্কষণ করছি।

মনসুর মুহাম্মদ

অরুয়াইল বাজার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া।


মন্তব্য