kalerkantho


তামিমকে ফোন করে প্রধানমন্ত্রী

খেলায় হার-জিত থাকবেই, শরীরের যত্ন নিয়ো

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



খেলায় হার-জিত থাকবেই, শরীরের যত্ন নিয়ো

শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে এক হাতে ব্যান্ডেজ নিয়ে এক হাতে ব্যাটিংয়ের বীরোচিত কীর্তির কারণে দেশ-বিদেশে যখন তামিম ইকবালের প্রশংসা চলছে, তখন তাঁকে ফোন করে শরীরের যত্ন নেওয়ার কথাও মনে করিয়ে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেসসচিব আশরাফুল আলম খোকন জানান, গতকাল বুধবার দুপুরে টেলিফোন করে বাংলাদেশ জাতীয় দলের ক্রিকেটার ওপেনার তামিম ইকবালের শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নেন প্রধানমন্ত্রী।

তামিমকে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘তোমরা দেশের সম্পদ। তোমরা বহির্বিশ্বে দিন দিন দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করছ। তোমার নিজের স্বাস্থ্যের প্রতিও যত্ন নিতে হবে। খেলায় হার-জিত থাকবেই।’

গত ১৫ সেপ্টেম্বর এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে নেমে চোটের কারণে মাঠ ছাড়তে হয় বাংলাদেশের ওপেনার তামিমকে। হাসপাতালে নেওয়া হলে তাঁর কবজিতে চিড় ধরা পড়ে। কিন্তু ৪৭তম ওভারের পঞ্চম বলে নবম ব্যাটসম্যান মুস্তাফিজুর রহমান রান আউট হয়ে গেলে চোট নিয়েই আবার মাঠে ফেরেন তামিম। শুধু ডান হাতে ব্যাটিং করে ওই ওভারের শেষ বলটি মোকাবেলা করেন তামিম। সেদিন তিনি এক বল খেললেও মুশফিকুর রহিমের সঙ্গে তাঁর দশম উইকেটের জুটিতে ১৬ বলে আসে মহামূল্য ৩২ রান। তামিমের বীরত্বে উজ্জীবিত মুশফিক খেলেন তাঁর ক্যারিয়ার সেরা ১৪৪ রানের ইনিংস। শেষ পর্যন্ত ওই ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ১৩৭ রানে হারিয়ে দেশের বাইরে সবচেয়ে বড় জয় পায় মাশরাফি বিন মর্তুজার দল। কবজির ওই চোটে এশিয়া কাপ শেষ না করেই দেশে ফিরতে হয়েছে তামিমকে। জাতীয় ক্রিকেট দলের এই ওপেনারকে অন্তত ছয় সপ্তাহ মাঠের বাইরে থাকতে হবে।

আশরাফুল আলম খোকন বলেন, শ্রীলঙ্কার সঙ্গে ম্যাচে সাহসী ভূমিকার জন্য তামিমকে ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, প্রয়োজন হলে বিদেশে নিয়ে তামিমের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হবে এবং তাঁকে (প্রধানমন্ত্রী) কোনো বিষয়ে জানাতে যেন তামিম কুণ্ঠা বোধ না করেন।



মন্তব্য