kalerkantho


বিমানবন্দরসংলগ্ন সড়ক

লরি উল্টে গোল চত্বরে ৯ হাজার লিটার ডিজেল

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৬ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



লরি উল্টে গোল চত্বরে ৯ হাজার লিটার ডিজেল

তেলবাহী ট্যাংক লরিটি গতকাল বিমানবন্দর সড়কে উল্টে যায়। এতে ট্যাংকারের তেল সড়কে ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় কয়েক ঘণ্টা ধরে ওই সড়কে ব্যাপক যানজটের সৃষ্ট হয়। ছবি : কালের কণ্ঠ

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরসংলগ্ন সড়কের গোল চত্বরে গতকাল সোমবার দুপুরে জ্বালানি তেলবাহী লরি দুর্ঘটনার শিকার হয়েছে। এর ফলে দুপুর ১২টা থেকে দুই ঘণ্টা যানজটে ভোগান্তির শিকার হয় সড়কটি ব্যবহারকারী হাজার হাজার যাত্রী।

বিমানবন্দর থানার ওসি নূরে আজম মিয়া কালের কণ্ঠকে বলেছেন, যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে লরিটি উল্টে যায়। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সূত্র জানায়, মেঘনা পেট্রোলিয়ামের নারায়ণগঞ্জ ডিপো থেকে ডিজেল নিয়ে বিশাল এই লরি টঙ্গীর এশিয়ান পেট্রল পাম্পে যাচ্ছিল। দুপুর ১২টার দিকে বিমানবন্দর গোল চত্বরের কাছে বাঁক নেওয়ার সময় লরির বাঁ দিকের চাকা খুলে যায়। চালক লরিটি সড়ক বিভাজনের ওপর উঠিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেন। এ সময় পাশের আইল্যান্ডে ধাক্কা খেয়ে লরির ডান দিকের চাকার স্প্রিং খুলে লরিটি কাত হয়ে পড়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গে জ্বালানি তেল ব্যস্ত সড়কে গড়িয়ে পড়া শুরু হয়। এ সময় বিমানবন্দর সড়কে ব্যাপক আতঙ্ক ছড়ায়। দুর্ঘটনায় লরির চালক সামান্য আহত হন। লরিতে থাকা ৯ হাজার লিটার জ্বালানির পুরোটাই পড়ে গেছে বলে পুলিশ জানায়। পড়ার সময় আশপাশের দোকানদের কেউ কেউ ড্রাম নিয়ে এসে ডিজেল সংগ্রহ করে বলেও জানা যায়।

বিমানবন্দর এলাকায় দায়িত্বে থাকা ট্রাফিক পরিদর্শক আবদুল আলীম গতকাল বিকেলে কালের কণ্ঠকে বলেন, দ্রুত লরিটি স্বাভাবিক অবস্থায় আনার চেষ্টা চলে।

একপর্যায়ে পুলিশের রেকার দিয়ে লরিটি সরিয়ে ফেলা হয়। কুর্মিটোলা ফায়ার স্টেশনের সিনিয়র অফিসার আব্দুল মান্নান বলেন, ভয় ছিল দুর্ঘটনার কারণে অগ্নিকাণ্ড ঘটার। তবে দ্রুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, ঘটনাটিকে নাশকতা মনে করে অনেকেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছিল। কারণ এই এলাকায় এর আগে এক আত্মঘাতী জঙ্গি সদস্য বোমা বিস্ফোরণ ঘটিয়েছিল।



মন্তব্য