kalerkantho


সবিশেষ

স্তন ক্যান্সারের জিনে ‘ঝুঁকি’ নেই

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৫ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



স্তন ক্যান্সারের জিনে ‘ঝুঁকি’ নেই

স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত সব রোগী এক রকম নয়। কোনো রোগীর শরীরে এই ক্যান্সারের জিন থাকে, কারো শরীরে থাকে না। এত দিন স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত কোনো নারীর শরীরে ওই জিন থাকলে তা ‘মারাত্মক ঝুঁকি’ হিসেবে দেখা হতো। সে ক্ষেত্রে জরুরি ভিত্তিতে অস্ত্রোপচারই ছিল একমাত্র সমাধান। কিন্তু নতুন এক গবেষণায় দাবি করা হয়েছে, এই জিন রোগীর জন্য বাড়তি কোনো বিপদ ডেকে আনে না।

অর্থাৎ এই জিন যে রোগীর শরীরে আছে, আর যার নেই, উভয়ের বেঁচে থাকার সম্ভাবনা সমান। ফলে এ বিষয়ে তাৎক্ষণিক অস্ত্রোপচার না করলে কোনো বিপদ ঘটার আশঙ্কা নেই। তবে মনে রাখা দরকার, গবেষণাটি হয়েছে ১৮ থেকে ৪০ বছর বয়সী রোগীদের ওপর। ফলে এর চেয়ে বেশি বয়স্ক নারীদের ক্ষেত্রে কী ঘটবে, তা গবেষকরা জানাননি।

স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত মোট তিন হাজার নারীর ওপর গবেষণাটি চালান যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অব সাউথাম্পটনের গবেষকরা। এসব নারীর অনেকের শরীরে ‘বিআরসিএ’ নামের ওই জিন ছিল, অনেকের শরীরে ছিল না। গবেষণা করে দেখা গেছে, এই জিনের কারণে কেউ তুলনামূলকভাবে আগে মারা যায়নি। ফলে গবেষকদের পরামর্শ, এই জিন থাকলেই তা অপসারণে তড়িঘড়ি করে অস্ত্রোপচার করানোর প্রয়োজন নেই। গবেষণা প্রতিবেদনটি ‘দ্য ল্যানসেট অনকোলজি’ সাময়িকীতে ছাপা হয়েছে।

উল্লেখ্য, এই জিনের কারণে ২০১৩ সালে অস্ত্রোপচার করে নিজের স্তন কেটে ফেলেন হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জলি। সূত্র : বিবিসি, এএফপি।



মন্তব্য