kalerkantho


সোনালী রূপালী জনতা ব্যাংক

১২ জানুয়ারির নিয়োগ পরীক্ষা বন্ধের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৮ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



১২ জানুয়ারির নিয়োগ পরীক্ষা বন্ধের নির্দেশ

সোনালী, রূপালী, জনতা ব্যাংকের সিনিয়র অফিসারসহ বিভিন্ন পদে আগামী ১২ জানুয়ারি অনুষ্ঠেয় সমন্বিত নিয়োগ পরীক্ষার কার্যক্রম বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ তিনটি ব্যাংকে নিয়োগের জন্য গত বছর জারি করা প্রজ্ঞাপন কেন অবৈধ ও বাতিল ঘোষণা করা হবে না এবং আগে কেন ২০১৬ সালের পরীক্ষা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করা হয়েছে।

বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের হাইকোর্ট বেঞ্চ গতকাল রবিবার এ আদেশ দেন। বগুড়ার আসাদুজ্জামান, কুমিল্লার আবু বকরসহ ২৮ জনের করা রিট আবেদনে এ আদেশ দেওয়া হয়। তাঁরা সবাই ২০১৬ সালের নিয়োগ পরীক্ষার প্রার্থী ছিলেন। তাঁদের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকটে রাশিদুল হক খোকন ও অ্যাডভোকেট তানজিব আল ইসলাম। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোতাহার হোসেন সাজু।

আইনজীবী জানান, রিট আবেদনকারীরা রাষ্ট্রায়ত্ত তিনটি ব্যাংক সোনালী, রূপালী ও জনতা ব্যাংকের ২০১৬ সালের নিয়োগ পরীক্ষার প্রার্থী ছিলেন। কিন্তু এ পরীক্ষা হয়নি। পরবর্তী সময়ে ওই তিনটি ব্যাংকসহ মোট আটটি ব্যাংকের সিনিয়র অফিসারসহ বিভিন্ন পদে নিয়োগের জন্য গত বছর ২৩ ও ২৯ আগস্ট ও ৭ সেপ্টেম্বর পৃথকভাবে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক। আগামী ১২ জানুয়ারি এ নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ করে গত ২ জানুয়ারি বাংলাদেশ ব্যাংকের নিজস্ব ওয়েবসাইটে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। এ অবস্থায় রিট আবেদন করেন সংশ্লিষ্টরা। আদালত অন্তর্বর্তীকালীন নিষেধাজ্ঞার পাশাপাশি রুল জারি করেছেন। অর্থসচিব, বাংলাদেশ ব্যাংকসহ চার বিবাদীকে চার সপ্তাহের মধ্যে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।



মন্তব্য