kalerkantho


সবিশেষ

প্রত্যঙ্গ প্রতিস্থাপনে বড় সাফল্য

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৩ আগস্ট, ২০১৭ ০০:০০



প্রত্যঙ্গ প্রতিস্থাপনে বড় সাফল্য

যুক্তরাষ্ট্রের বিজ্ঞানীরা বলছেন, তাঁরা শূকর ব্যবহার করে মানুষের প্রত্যঙ্গ প্রতিস্থাপন পদ্ধতিতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি অর্জন করেছেন। তাঁরা শূকরের জিনে এমন কিছুু পরিবর্তন করতে পেরেছেন, যাতে শূকরের দেহের অংশ থেকে কোনো রোগ মানবদেহে ছড়াবে না।

গবেষকরা বলছেন, জিনের পরিবর্তন ঘটিয়ে ৩৭টি শূকরের দেহ তাঁরা ২৫ ধরনের ভাইরাস থেকে মুক্ত করেন, যার ফলে এদের মধ্যে সংক্রমণের আশঙ্কা দূর হয়ে যায়। এরপর ক্লোনিং প্রযুক্তির মাধ্যমে ভাইরাসমুক্ত শূকরের শাবক তৈরি করা হয়।

বর্তমানে মানুষের শরীরে প্রতিস্থাপনের জন্য প্রত্যঙ্গ পাওয়া কঠিন। বিজ্ঞানীরা বলছেন, গবেষণায় এই অগ্রগতির ফলে মানুষের অঙ্গপ্রত্যঙ্গ না পাওয়া গেলে বিকল্প ব্যবস্থা হিসেবে শূকরের অঙ্গপ্রত্যঙ্গ প্রতিস্থাপনের জন্য ব্যবহার করা যাবে।

পশুর দেহের অংশ মানুষের শরীরে প্রতিস্থাপনের এ পদ্ধতিতে (জেনোট্রান্সপ্লান্টেশন) সাফল্য অর্জনের জন্য বিজ্ঞানীরা গত ২০ বছর ধরে চেষ্টা চালিয়ে আসছেন।

মানুষ ও শূকরের কোষ একসঙ্গে মিশলে শূকরের দেহের ভাইরাস মানুষের শরীরে ছড়াবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছিল। এখন এ গবেষণার ফলাফল সেই আশঙ্কা দূর করার পথে বড় একটা অগ্রগতি বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা। সূত্র : বিবিসি।


মন্তব্য