kalerkantho


সবিশেষ

রাজার প্রোফাইল শেয়ার করায়...

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



ধরতে গেলে তেমন অপরাধই না। কিন্তু ‘ক্ষমতা’ যখন অপরাধ হিসেবে দেখছে, তখন আর কিছুই করার নেই। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে রাজার প্রোফাইল শেয়ারের অভিযোগে কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হয়েছে থাইল্যান্ডের এক যুবককে।

থাইল্যান্ডের রাজার প্রোফাইল ফেসবুকে শেয়ার করেছিলেন জাতুপাত বুনপাত্তারাক্ষা নামের ওই যুবক। আর এ অপরাধে তাঁর বিচার শুরু করেছে থাই কর্তৃপক্ষ। অবশ্য সেনা সমর্থিত সরকারের বিরোধিতা করায় তিনি রাজার রোষানলে পড়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। মানবাধিকার কর্মীদের দাবি, রাজার প্রোফাইল বিষয় না, আসল বিষয় হলো সরকারের বিরোধিতা করা। সে জন্যই বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হয়েছে তাঁকে।

গত ডিসেম্বরে থাইল্যান্ডের নতুন রাজার অভিষেকের দুই দিন পরেই আটক করা হয় জাতুপাতকে। যদিও ওই প্রোফাইল প্রকাশ করেছিল বিবিসি। আর সেটি ফেসবুকে শেয়ার করেছিলেন জাতুপাত।

কিন্তু খটকা আছে আরো। দুই হাজার ৪১০ জন বিবিসির পোস্টটি শেয়ার করেছিল। এদের মধ্যে বিচার হচ্ছে শুধু একজনের। শুক্রবার তাঁকে একটি আদালতে তোলা হয়েছিল অল্প সময়ের জন্য। আনুষ্ঠানিক বিচার কার্যক্রম শুরু হবে আগামী মাসে। রায়ে দোষী সাব্যস্ত হলে ১৫ বছর পর্যন্ত জেল হতে পারে জাতুপাতের। সূত্র : বিবিসি।


মন্তব্য