kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বিপজ্জনক রাস্তা পাড়ির রেকর্ড

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



বিপজ্জনক রাস্তা পাড়ির রেকর্ড

পৃথিবীতে বিপজ্জনক যত রাস্তা আছে তার একটি চীনের টংটিয়ান রোড। চীনে এই রাস্তাটি পরিচিত ‘বিশ্বের বিস্ময়কর সড়ক’ হিসেবে।

রাস্তাটি বৃত্তাকারে ঘুরতে ঘুরতে বহু জায়গায় আকস্মিক বাঁক নিয়ে অনেক ওপরে উঠে গেছে। চীনের হুনান প্রদেশে এই রাস্তাটি লম্বায় ১১ কিলোমিটার বা ৬.৮ মাইল। ঝুঁকিপূর্ণ এই রাস্তাটি সবচেয়ে কম সময়ে পার হয়ে রেকর্ড সৃষ্টি করেছেন ইতালীয় এক চালক। ফাবিও ব্যারোন নামের ওই চালক পুরো রাস্তাটি পাড়ি দিয়েছেন মাত্র ১০ মিনিট ৩১ সেকেন্ডে।

কেন বিপজ্জনক এই রাস্তা? টংটিয়ান রোডটি চীনের তিয়ানমেন পর্বতে। পাহাড় পেঁচিয়ে পেঁচিয়ে উঠে গেছে ওপরের দিকে। এই রাস্তাটিতে আছে ৯৯টি কঠিন বাঁক। এই বাঁকগুলো এতই প্রখর যে যেকোনো সময় গাড়ি পাহাড়ের ওপর থেকে ছিটকে পড়ে যেতে পারে। এই বাঁক কোথাও কোথাও পাহাড়ের কিনার ঘেঁষে ১৮০ ডিগ্রি। অর্থাৎ গাড়িটি যেদিকে যাচ্ছিল হঠাৎ করেই তার উল্টোদিকে চলতে শুরু করবে।

রাস্তাটি পাহাড়ের যে পাদদেশ থেকে উঠেছে ওই জায়গাটি সমুদ্র থেকে ২০০ মিটার ওপরে। আর ওপরের দিকে এটি সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে এক হাজার ৩০০ মিটার উঁচুতে। পাহাড়ের ওপর সাপের মতো প্যাঁচানো এই রাস্তাটি তৈরি করতে সময় লেগেছে প্রায় সাত বছর। পাহাড়ের গা বেয়ে রাস্তাটি এমনভাবে ওপরের দিকে উঠে গেছে, দেখে মনে হবে একটি ড্রাগন আকাশের দিকে উড়ে যাচ্ছে।

ফেরারি গাড়ি চালিয়ে এই পুরো রাস্তাটি শেষ করেছেন ইতালীয় চালক। এ জন্য তাঁর এই গাড়িটিতে বিশেষভাবে কিছু জিনিস বদলে নিতে হয়েছে। গাড়িটিতে ধাতব পদার্থের পরিবর্তে কার্বন ফাইবারের যন্ত্রাংশ ব্যবহার করে ওজন কমানো হয়েছে। পাহাড়ি রাস্তায় দ্রুতগতিতে গাড়ি চালিয়ে ইতিমধ্যে নাম কুড়িয়েছেন ব্যারোন।

এর আগেও রোমানিয়ার ট্রান্সস্যালভেনিয়ান আল্পসের একটি পর্বতের ওপর তৈরি করা রাস্তায় দ্রুতগতিতে গাড়ি চালিয়ে তিনি রেকর্ড সৃষ্টি করেছিলেন। সূত্র : বিবিসি।


মন্তব্য