kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ জানুয়ারি ২০১৭ । ৪ মাঘ ১৪২৩। ১৮ রবিউস সানি ১৪৩৮।


ট্রাজানের মুদ্রায় অগাস্টাস

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৬ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



ট্রাজানের মুদ্রায় অগাস্টাস

এক রোমান সম্রাটের আমলের স্বর্ণমুদ্রায় আরেক রোমান সম্রাটের প্রতিকৃতি দেখে বিস্মিত আজকের বিশেষজ্ঞরা। কারণ রোমান সম্রাটরা সাধারণত নিজের আমলে তৈরি মুদ্রায় নিজের প্রতিকৃতিই স্থাপন করে থাকেন।

ইসরায়েলের উত্তরাঞ্চল ভ্রমণে গিয়ে তেমনই এক মুদ্রার দেখা পেয়ে সেটা যথাযথ কর্তৃপক্ষের হাতে তুলে দিয়েছেন সেখানকার নাগরিক লরিয়ে

রিমন। গ্যালিলি এলাকার পূর্বাঞ্চলে বন্ধুদের সঙ্গে ভ্রমণে গিয়ে হঠাৎ ঘাসের মধ্যে কিছু একটা চকচক করতে দেখেন লরিয়ে। আর সেটা ছিল স্বর্ণমুদ্রা। তাঁদের গাইডের সহায়তায় সেটা ইসরায়েলের পুরাতত্ত্ব কর্তৃপক্ষের (আইএএ) হাতে তুলে দেওয়া হয়। ঠিক একই ধরনের একটি মুদ্রা লন্ডনে ব্রিটিশ মিউজিয়ামে সংরক্ষিত আছে।

আইএএ জানায়, গ্যালিলিতে পাওয়া স্বর্ণমুদ্রাটি এক হাজার ৯০০ বছরের পুরনো। ১০৭ সালে রোমান সম্রাট ট্রাজানের আমলে এ ধরনের স্বর্ণমুদ্রা তৈরি করা হয়। মুদ্রার একপাশে সম্রাটের নামের পর রোমান সেনাবাহিনীর প্রতীক অঙ্কিত। আর অন্য পাশে সম্রাট ট্রাজানের মুখাবয়বের পরিবর্তে প্রথম রোমান সম্রাট অগাস্টাসের মুখাবয়ব অঙ্কিত। বিশেষজ্ঞদের ধারণা, জনসেবা ও কল্যাণ নীতির জন্য পরিচিত সম্রাট ট্রাজান সম্ভবত সম্রাট অগাস্টাসের অনুরক্ত ছিলেন এবং তাঁর প্রতি সম্মান প্রদর্শনের উদ্দেশ্যেই মুদ্রায় নিজের প্রতিকৃতির পরিবর্তে অগাস্টাসের প্রতিকৃতি খোদাই করার নির্দেশ দেন তিনি।

আইএএর মুদ্রা জাদুঘরের পরিচালক ড. ডোনাল্ড টি অ্যারিয়েল মনে করেন, দুই হাজার বছর আগে গ্যালিলিতে বার কোখবা সমর্থকদের বিরুদ্ধে অভিযানের উদ্দেশ্যে রোমান সেনারা সেখানে গিয়েছিলেন। কিন্তু একটিমাত্র মুদ্রার ভিত্তিতে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্তে আসাটা কঠিন বলেও স্বীকার করেন তিনি।

ওই সময় কিছু কিছু রোমান সেনা দিনে তিনটি করে স্বর্ণমুদ্রা বেতন পেতেন। এগুলোর মূল্য এত বেশি ছিল যে, বাজারে এগুলোর বিনিময়ে কিছু কেনা কঠিন হতো। কারণ ব্যবসায়ীরা স্বর্ণমুদ্রাগুলোর ভাংতি দিতে পারতেন না। সূত্র : ডেইলি মেইল।


মন্তব্য