kalerkantho

রবিবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আইএসের ২২ হাজার সদস্যের পরিচয় ফাঁস

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১১ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



আইএসের ২২ হাজার সদস্যের পরিচয় ফাঁস

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) ২২ হাজার সদস্যের পরিচয় ফাঁস হয়েছে। এদের মধ্যে ৫১টি দেশের নাগরিক রয়েছে।

তবে বাংলাদেশের কোনো নাগরিক আছে কি না—তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। আইএস থেকে বেরিয়া আসা এক সদস্যের মারফত এসব তথ্য হাতে পাওয়ার দাবি করেছে যুক্তরাজ্যের স্কাই নিউজ ও জার্মানির গোয়েন্দারা।

বিশ্লেষকরা বলছেন, আইএসবিরোধী অভিযানে এ ঘটনাকে একটা বড় অগ্রগতি হিসেবে বিবেচনা করতে হবে। কারণ, সদস্য সংগ্রহের ক্ষেত্রে কারা আইএসের হয়ে কাজ করে, তা এবার অনেকটাই পরিষ্কার হবে।

স্কাই নিউজের বরাত দিয়ে এএফপি জানায়, আইএসে যোগ দেওয়ার সময় একজন নতুন সদস্যকে একটি ফরম পূরণ করতে হয়। ওই ফরমে ২৩টি প্রশ্ন থাকে। যেমন, নাম, ঠিকানা, জন্ম তারিখ, দেশ, রক্তের গ্রুপ, মা-বাবার নাম, অতীত অভিজ্ঞতা, বোমা বানাতে পারে কি না ইত্যাদি। মূলত এ রকম ২২ হাজার ফরমের অমুদ্রিত (সফট) কপি হাতে পেয়েছে স্কাই নিউজ ও জার্মান গোয়েন্দারা। আর এগুলো সরবরাহ করেছেন আবু হামেদ নামের এক ব্যক্তি। তিনি ফ্রি সিরিয়ান আর্মি থেকে আইএসে যোগ দিয়েছিলেন। সম্প্রতি হামেদ আইএস থেকে বেরিয়ে আসার সময় তথ্যগুলো হাত করেন। তথ্যগুলো তিনি সংগ্রহ করেছেন আইএসের অভ্যন্তরীণ পুলিশের তথ্যভাণ্ডার থেকে।

ফরমগুলো আরবিতে লেখা এবং সবটাতে আইএসের সিলমোহর আছে। প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে, তাতে যুক্তরাজ্যের ১৬ নাগরিকের নাম আছে। নাম আছে যুক্তরাষ্ট্রের চারজন ও কানাডার ছয়জনের। আর বেশ কয়েকজন আছে ফ্রান্স ও জার্মানির। অবশ্য আইএসে যোগ দেওয়া জুনায়েদ হুসাইন ও আব্দেল-মাজেদ আব্দেল বারির মতো কয়েকজন ব্রিটিশের নাম আগেই জানা গেছে।

জার্মান ফেডারেল পুলিশ—বিকেএর এক মুখপাত্র বলেন, তাদের বিশেষজ্ঞদের মধ্যে দলিলের সত্যতা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। জার্মানির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী থমাস দ্য মেইজিয়েরও এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘এই তথ্যগুলো আইএসের কাঠামো সম্পর্কে ধারণা পেতে সহায়তা করবে। ’

যুক্তরাজ্যভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ‘ইন্টারন্যাশনাল প্রটেক্ট অ্যান্ড প্রিপেয়ার সিকিউরিটি অফিস’-এর পরিচালক ক্রিস ফিলিপস বলেন, ‘এর মাধ্যমে পরিষ্কার হলো আইএস তাদের নিজেদের সদস্যদের হাতেই কতটা অরক্ষিত। ’ এ ঘটনাকে বড় অগ্রগতি হিসেবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘এখন পরিষ্কার হবে আইএস কিভাবে সদস্য সংগ্রহ করে কিংবা কারা তাদের সহায়তা করে। ’


মন্তব্য