kalerkantho


ইন্দুরকানীতে খালে বিষ ঢেলে দুর্বৃত্তদের মাছ শিকার চলছে!

পিরোজপুর প্রতিনিধি   

১৬ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে প্রতিবছর শীতের রাতে খালে বিষ ঢেলে মাছ ধরছে দুর্বৃত্তরা। বিষের কারণে ‘ধ্বংস হচ্ছে’ লাখ লাখ রেণু পোনা। আর তাতে কমে যাচ্ছে মাছের বংশবিস্তার, ক্ষতি হচ্ছে মৎস্য সম্পদের।

উপজেলা মৎস্য অফিস সূত্রে জানা যায়, ইন্দুরকানীতে মোট ১২টি খাল আছে।  বেশির ভাগ খালেই আছে স্লুইস গেট। খালগুলোতে চিংড়ির বংশবিস্তার হয় বেশি। শুকনো মৌসুমে খালগুলোতে পানি কম থাকায় দুর্বৃত্তরা মাছ শিকারের জন্য ওত পেতে থাকে। গত দুই মাস ধরে ঘোষেরহাট, চাড়াখালী, চরবলেশ্বর ছোরের খালে বিষ দিয়ে মাছ নিধনের ঘটনা ঘটেই চলছে। সর্বশেষ গত মঙ্গলবার খোলপটুয়া হোরার খালে বিষ ঢেলে দেয় তারা। পরে ভাটির টানে খালের পানি কমে গেলে বিভিন্ন প্রজাতির মাছ ভেসে ওঠে। বদরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে মুন্সীরহাট পর্যন্ত খালের দেড় কিলোমিটার এলাকা থেকে মাছ ধরে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। পরদিন বুধবার ভোরে স্থানীয়রা বিষয়টি টের পায়। তীব্র শীত উপেক্ষা করে খালে মাছ ধরতে নামে দুই পারের বাসিন্দারা। কিছুুদিন আগে জনতার হাতে ধরা পড়ে দুই দুর্বৃত্ত। তখন তাদের জরিমানাও করা হয়।

বালিপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য আবুল হোসেন জানান, ধরা পড়ার পর জেল-জরিমানা করা হলেও বিষ ঢেলে মাছ শিকার থামছে না। উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা শেখ আসাদুল্লাহ বলেন, দুর্বৃত্তদের ধরতে চেষ্টা চলছে।



মন্তব্য