kalerkantho


জুলাইয়ে সঞ্চয়পত্রে বিনিয়োগে উল্লম্ফন

নিট ঋণ ৫০৩৬ কোটি টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



জুলাইয়ে সঞ্চয়পত্রে বিনিয়োগে উল্লম্ফন

চলতি অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে বড় ধরনের বিনিয়োগ এসেছে সঞ্চয়পত্রে। এ মাসে সঞ্চয়পত্রে মোট জমার পরিমাণ ছিল আট হাজার ২৩০ কোটি টাকা। এর থেকে আগে বিক্রি হওয়া সঞ্চয়পত্রের গ্রাহকদের মূল ও মুনাফা পরিশোধ শেষে সরকারের নিট ঋণ দাঁড়িয়েছে পাঁচ হাজার ৩৬ কোটি টাকা।

জাতীয় সঞ্চয়পত্র অধিদপ্তরের মাসিক বিবরণী থেকে দেখা যায়, চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে সঞ্চয়পত্রসহ সব ধরনের জাতীয় সঞ্চয় স্কিমগুলোতে মোট জমা হওয়া আট হাজার ২২৯ কোটি ৬১ লাখ টাকা থেকে মূল ও মুনাফা পরিশোধে ব্যয় হয়েছে তিন হাজার ১৯৩ কোটি ৮৭ লাখ টাকা (এর মধ্যে মুনাফা বাবদ পরিশোধ করা হয়েছে এক হাজার ৮৯০ কোটি ৩২ লাখ টাকা)।

ফলে নিট ঋণ দাঁড়ায় পাঁচ হাজার ৩৫ কোটি ৭৪ লাখ টাকা, যা গত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের জুলাই মাসে আসা নিট ঋণের চেয়ে সামান্য কিছুটা কম। গত বছরের জুলাইয়ে সঞ্চয়পত্রে নিট ঋণ ছিল পাঁচ হাজার ৫৩ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। তবে গত কয়েক মাসের তুলনায় জুলাইয়ে বড় ধরনের উল্লম্ফন দেখা দিয়েছে  বিদায়ী অর্থবছরের সর্বশেষ মাস জুনে সঞ্চয়পত্রে নিট ঋণ এসেছে তিন হাজার ১৬৬ কোটি টাকা। এর আগের মাসে (মে ২০১৭) তিন হাজার ৩০০ কোটি টাকা, এপ্রিলে তিন হাজার ৩৫৪ কোটি টাকা এবং মার্চে তিন হাজার ৫৮৯ কোটি টাকা নিট ঋণ আসে সঞ্চয়পত্রে। এর আগের মাস ফেব্রুয়ারিতে চার হাজার ১৫৬ কোটি টাকা, জানুয়ারিতে পাঁচ হাজার ১৩৯ কোটি টাকা, ডিসেম্বরে দুই হাজার ৬৫১ কোটি টাকা, নভেম্বরে তিন হাজার ৮৫৭ কোটি টাকা, অক্টোবরে চার হাজার ৬২০ কোটি টাকা, সেপ্টেম্বরে তিন হাজার ৬৬৫ কোটি টাকা এবং আগস্টে তিন হাজার ৯৭৫ কোটি টাকা নিট ঋণ আসে সঞ্চয়পত্রে।

বিদায়ী ২০১৭-১৮ অর্থবছরে সঞ্চয়পত্র থেকে সরকারের নিট ঋণ দাঁড়ায় ৪৬ হাজার ৫৩০ কোটি টাকা, যা ঘাটতি বাজেট অর্থায়নে সরকার নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা (সংশোধিত) থেকেও দুই হাজার ৫৩০ কোটি টাকা বেশি। বিদায়ী অর্থবছরে সংশোধিত বাজেটে জাতীয় সঞ্চয় স্কিমসহ সব ধরনের সঞ্চয়পত্র থেকে সরকারের ঋণ গ্রহণের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৪৪ হাজার কোটি টাকা। চলতি অর্থবছরে এ খাত থেকে সরকারের ঋণ নেওয়ার লক্ষ্য রয়েছে ২৬ হাজার ১৭৯ কোটি টাকা।

 



মন্তব্য