kalerkantho


প্যারিস টেক্সওয়ার্ল্ডে যাচ্ছে বাংলাদেশের ২১ প্রতিষ্ঠান

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে ১৭-২০ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিতব্য টেক্সওয়ার্ল্ড অ্যাপারেল সোর্সিংয়ে অংশ নিচ্ছে বাংলাদেশ। রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর (ইপিবি) ব্যানারে বাংলাদেশ থেকে ২১ জন তৈরি পোশাক, ফ্যাব্রিক এবং চামড়াজাত পণ্য প্রস্তুতকারক প্যারিসে চার দিনের প্রদর্শনীতে অংশ নেবে। গতকাল এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, টেক্সওয়ার্ল্ড-অ্যাপারেল সোর্সিং প্যারিসকে বলা হয় বাংলাদেশি রপ্তানিকারকদের জন্য ইউরোপে অ্যাপারেল সোর্সিংয়ের সবচেয়ে কার্যকর প্রদর্শনী, যেখানে প্রচুর দর্শক-ক্রেতার সমাগম হয়। গত বছর এই প্রদর্শনীতে এক হাজার ৭৪২ জন প্রদর্শক অংশ নেয়। এতে বিশ্বের ১০৮টি দেশ থেকে ১৫ হাজার জন দর্শনার্থী আসে।

বাংলাদেশ থেকে অংশ নেওয়া ২১ জন প্রদর্শকের মধ্যে ৯ জন নিটওয়্যার পণ্যের, চারজন ডেনিমজাত পণ্যের, পাঁচজন ফ্যাব্রিক এবং তিনজন চামড়াজাত পণ্যের প্রস্তুতকারক। তারা ইপিবির ব্যানারে সপ্তম জাতীয় প্যাভিলিয়নে অংশ নেবে।

বাংলাদেশি পণ্যের প্রস্তুতকারকদের জন্য ১৯ সেপ্টেম্বর দুটি ফ্যাশন শোর আয়োজন করা হয়েছে। এর মধ্যে প্রথম ফ্যাশন শোতে যাবের অ্যান্ড যুবায়ের ফ্যাব্রিকস তাদের পণ্যের প্রদর্শনী করবে এবং দ্বিতীয় ফ্যাশন শো এ বাংলাদেশ থেকে যাওয়া অন্য সব প্রদর্শক তাদের পণ্য মেলে ধরবে সারা বিশ্বের ক্রেতা ও দর্শকের সামনে। বাংলাদেশ থেকে যে প্রদর্শক প্রতিষ্ঠানগুলো অংশ নিচ্ছে।

ফ্যাব্রিক : এক্সপেরিয়েন্স টেক্সটাইলস, এভিন্স টেক্সটাইলস, মাহমুদ ফ্যাব্রিকস, যাবের অ্যান্ড যুবায়ের ফ্যাব্রিকস, এনযে টেক্সটাইল।

ডেনিম : আরগন ডেনিমস, চিটাগাং ডেনিম মিলস, মাহমুদ ডেনিম, এনজে ডেনিম, নাইস ডেনিম।

তৈরি পোশাক : ডি কে সোয়েটার, ডেলফিটেক্স ইন্ডাস্ট্রিজ, ইভ ড্রেস শার্ট, এভারব্রাইট সোয়েটার, ডিডি সোর্সিং লিমিটেড, হেলেনিক সোর্সিং, স্টাইল লিড ফ্যাশন, টিম সোর্সিং, সাঙ্গু গ্রুপ।

চামড়াজাত পণ্য : আমাস ফুটওয়্যার, বিএলজে বাংলাদেশ করপোরেশন, মেগুমি ফুটওয়্যার।

আগামীবারের টেক্সওয়ার্ল্ড/অ্যাপারেল সোর্সিং আবারও অনুষ্ঠিত হবে ১১-১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯-এ। এ ছাড়া আফ্রিকান সোর্সিং অ্যান্ড ফ্যাশন উইক অনুষ্ঠিত হবে ১-৪ অক্টোবরে ইথিওপিয়ার আদ্দিস আবাবা শহরে।

 



মন্তব্য