kalerkantho

টানা ১২ দিন দরপতন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৮ মে, ২০১৮ ০০:০০



সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস গতকাল বৃহস্পতিবারও পুঁজিবাজারে বড় দরপতন হয়েছে। এই নিয়ে একটানা ১২ কার্যদিবস পুঁজিবাজারে পতন ঘটল। বৃহস্পতিবার দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেন হয়েছে ৪৯২ কোটি ৭৯ লাখ টাকা। আর সূচক কমেছে ৬৮ পয়েন্ট। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৩৯৪ কোটি ৮৬ লাখ টাকা। আর সূচক কমেছিল ৩৭ পয়েন্ট। সেই হিসাবে লেনদেন বাড়লেও সূচক কমেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, লেনদেন শুরুর পর থেকেই পুঁজিবাজারে শেয়ার বিক্রির চাপ বাড়তে থাকে। একটানা শেয়ার বিক্রিতে সূচকও কমে যায়। দিন শেষে সূচক দাঁড়িয়েছে পাঁচ হাজার ৪৪৩ পয়েন্ট। ডিএস-৩০ মূল্যসূচক ৩০ পয়েন্ট কমে দুই হাজার ২৫ পয়েন্ট ও ডিএসইএস শরিয়াহ সূচক ১৩ পয়েন্ট কমে এক হাজার ২৭৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। লেনদেন হওয়া ৩৩৪ কম্পানির মধ্যে দাম বেড়েছে ৪৪টির, কমেছে ২৫৪টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৮ কম্পানির শেয়ার দাম।

লেনদেনের ভিত্তিতে শীর্ষে রয়েছে ইন্ট্রাকো রিফুয়েলিং। কম্পানিটির লেনদেন হয়েছে ৪৪ কোটি ৩০ লাখ টাকা। দ্বিতীয় স্থানে থাকা বিএসআরএম লিমিটেডের লেনদেন হয়েছে ৩০ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। আর তৃতীয় স্থানে থাকা ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ডের লেনদেন হয়েছে ১৬ কোটি ৭৬ লাখ টাকা। অন্যান্য শীর্ষ কম্পানি হচ্ছে ইউনাইটেড পাওয়ার, বেক্সিমকো লিমিটেড, মুন্নু সিরামিকস, ব্র্যাক ব্যাংক, গ্রামীণফোন, স্কয়ার ফার্মা ও কুইনসাউথ টেক্সটাইল।

দাম বৃদ্ধির শীর্ষে রয়েছে কুইনসাউথ টেক্সটাইল, এসইএমএল লেকচার ইক্যুইটি ফান্ড, এসইএমএল আইবিবিএল শরিয়া ফান্ড, এমবিএল ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইভিন্স টেক্সটাইল, মুন্নু স্টাফলার, ইস্টার্ন কেবলস, জিপিএইচ ইস্পাত, প্রিমিয়ার সিমেন্ট ও খুলনা পাওয়ার। অন্য বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে লেনদেন হয়েছে ৫১ কোটি ৪৬ লাখ টাকা। আর সূচক কমেছে ১২৮ পয়েন্ট। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ২৩ কোটি পাঁচ লাখ টাকা। আর সূচক কমেছিল ৬৫ পয়েন্ট। বৃহস্পতিবার লেনদেন হওয়া ২২৫ কম্পানির মধ্যে দাম বেড়েছে ২৬টির, দাম কমেছে ১৭৯টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২০ কম্পানির শেয়ার দাম।



মন্তব্য