kalerkantho


অর্থমন্ত্রী বললেন

বিজেএমসির খপ্পরে পাট মন্ত্রণালয়

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৮ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



পাট মন্ত্রণালয় বিজেএমসির খপ্পরে পড়েছে বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। পাটকে এগিয়ে নিতে বিজেএমসিকে বন্ধ করে দেওয়া উচিত বলেও জানান মন্ত্রী। বিজেএমসি বন্ধ করে পাট মন্ত্রণালয়ের অধীন একটি সমন্বয় সেল স্থাপনের পরামর্শ দেন তিনি।

গতকাল সচিবালয়ে অর্থ বিভাগ ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগে কর্মকর্তা-কর্মচারী কল্যাণ সমিতির প্রকাশিত সাময়িকী প্রয়াসের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে পাট প্রতিমন্ত্রীর বক্তব্য নিয়ে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী এ কথা বলেন।

৬ মার্চ পাট দিবসের এক সভায় পাট খাতের করুণ অবস্থার জন্য বিশ্বব্যাংক ও অর্থমন্ত্রীকে দায়ী করে বক্তব্য দেওয়ার পর মুহিত এ কথা বললেন।

পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেন, ‘মাননীয় অর্থমন্ত্রী, তিনিই আসলে পাটের বিরোধী। তাঁর কাছে পাটের কিছু গেলেই মানসিকভাবে তিনি মনে হয় এটা অপছন্দ করেন। যার কারণে তাঁর কর্মকর্তারা পাটকে কৃষিপণ্যের তালিকায় তুলতে টালবাহানা করছেন।’

‘আমাদের পাটের বিরুদ্ধে বিশ্বব্যাংক, আইএমএফ ও আমাদের দেশের ভেতরেও অনেক ষড়যন্ত্র আছে। আমার বিশ্বাস, বিশ্বব্যাংকের কিছু প্রেতাত্মা আমাদের অর্থ মন্ত্রণালয়ে এখনো বসে আছে’—যোগ করেন মির্জা আজম।

পাট প্রতিমন্ত্রীর বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে মুহিত আরো বলেন, ‘এটা তাঁর ব্যক্তিগত অভিমত। সেটার ওপর আমি কোনো মন্তব্য করতে চাই না। অসুবিধা হলো, পাটকে আমরা প্রসার করতে চাই; কিন্তু প্রক্রিয়াটা ভালো যাচ্ছে না।’

বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশনের কোনো দরকার নেই—এমন অভিমত ব্যক্ত করে মুহিত বলেন, ‘পাটকে এগিয়ে নেওয়ার প্রক্রিয়ায় বিজেএমসির কোনো প্রয়োজন নেই বলে আমি মনে করি। বিজেএমসির কোনো জায়গা নেই। আমরা বলেছি, পিপিপি প্রজেক্ট অনুসরণ করতে। হোয়াট দ্য ব্লাডি হেল বিজিএমসি, ইট শুড বি অ্যাবোলিশড।’

স্বাধীনতার পর থেকে রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলগুলো পরিচালনার দায়িত্ব বিজেএমসির। প্রতিবছরই পাটকলগুলো লোকসান করছে। টাকার অভাবে যথাসময়ে পাট কিনতে পারছে না। শ্রমিকদের পাওনা বকেয়া থাকছে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, বিজেএমসি বন্ধ করতে আনুষ্ঠানিকভাবে পাট মন্ত্রণালয়কে বলেছি; কিন্তু তারা সংস্থাটির খপ্পরে পড়েছে। যখন বিজেএমসি হলো, প্রতিবছর ৪০০ বা ৫০০ কোটি করে টাকা দেওয়া হচ্ছে। তার পরও তারা সন্তুষ্ট না। তারা টাকার জন্য উন্মুখ হয়ে থাকে। বিজেএমসির ব্যবস্থাপনা ভয়ংকর। তাই আমি এটি অপছন্দ করি। পাটকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য প্রথম পরামর্শ হলো বিজেএমসি বন্ধ করে দেওয়া।

 



মন্তব্য