kalerkantho


সীমান্ত হাট বাড়াবে বাংলাদেশ-ভারত

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে সীমান্তের বাণিজ্যিক পয়েন্টগুলোর অবকাঠামো উন্নয়ন ও আধুনিকায়ন করবে বাংলাদেশ-ভারত। সেই সঙ্গে সীমান্ত হাটের সংখ্যাও বাড়ানো হবে। এর পাশাপাশি অশুল্ক বাধা দূরীকরণসহ আরো বেশ কিছু পদক্ষেপ নেওয়া হবে। সম্প্রতি ভারতের তরফ থেকে এমন বক্তব্য ফুটে উঠেছে দেশটির দৈনিক দ্য হিন্দুর এক প্রতিবেদনে।

প্রতিবেদনটিতে বলা হয়, গত সোমবার ভারতের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়, গত ৭ থেকে ৮ ফেব্রুয়ারি দুই দেশের মধ্যে একটি দীর্ঘ ও কার্যকর আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে সীমান্তের বাণিজ্যিক পয়েন্টগুলোর অবকাঠামো উন্নয়ন ও সেগুলোকে আরো আধুনিক করা, দুই দেশের সীমান্ত হাটের সংখ্যা বাড়ানো, বাণিজ্যিক বাধা তৈরি করছে, এমন অশুল্ক বাধাগুলো চিহ্নিত করে সেসব সমস্যার সমাধান করা, বিবিআইএনের (বাংলাদেশ-ভুটান-ভারত-নেপাল যান চলাচল চুক্তি) অধীনে আঞ্চলিক কানেকটিভিটি নিশ্চিত করা এবং বিনিয়োগ বাধা দূর করা।

এ ছাড়া রপ্তানি উন্নয়নে সহযোগিতার পাশাপাশি বাণিজ্যিক সক্ষমতা বাড়াতেও একসঙ্গে কাজ করবে দুই দেশ। বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বিষয়ে নীতিনির্ধারণী পর্যায়ে পরামর্শ দেওয়ার জন্য একটি প্রাতিষ্ঠানিক মেকানিজম প্রতিষ্ঠার বিষয়েও আলোচনা করেছেন দুই দেশের বাণিজ্যসচিবরা।

গত ডিসেম্বরে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত রাজ্যগুলোর মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে এক বৈঠকে জানান, বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। তাই বৈধ বাণিজ্য ও যাতায়াত নিশ্চিতে পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। তবে উগ্রবাদ, অবৈধ যাতায়াত, পশু চোরাচালান, জাল ভারতীয় নোট এবং মাদক নিয়ন্ত্রণে কঠোর ভূমিকা পালন করা হবে। বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত রাজ্যগুলো হচ্ছে আসাম, মেঘালয়, মিজোরাম, ত্রিপুরা এবং পশ্চিম বাংলা, যা দীর্ঘ চার হাজার ৯৬ কিলোমিটার সীমান্ত। ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ তথ্য নিশ্চিত করে।

দুই দেশের বাণিজ্য বৃদ্ধি ও সহজীকরণে অন্যতম একটি উপায় হচ্ছে সীমান্ত হাট প্রতিষ্ঠা। গত বছরের আগস্টে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় জানায়, বর্তমানে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে চারটি হাট কার্যকর রয়েছে। এর মধ্যে দুটি মেঘালয়ে এবং দুটি ত্রিপুরায়। এর পাশাপাশি আরো ছয়টি হাট প্রতিষ্ঠ করা হবে। এর মধ্যে দুটি হবে ত্রিপুরায় এবং চারটি হবে মেঘালয়ে।

২০১৬-১৭ অর্থবছরে বাংলাদেশ-ভারত বাণিজ্য ১১.২৩ শতাংশ বেড়ে হয়েছে ৭.৫ বিলিয়ন ডলার। এর মধ্যে ভারতের রপ্তানি ১৩ শতাংশ বেড়ে হয়েছে ৬.৮ বিলিয়ন ডলার। এর বিপরীতে ভারতে বাংলাদেশের রপ্তানি ৩.৫ শতাংশ কমে হয়েছে ৭০১.৬৮ মিলিয়ন ডলার। দ্য হিন্দু।

 


মন্তব্য