kalerkantho


বড় মূলধনী কম্পানিতে ঊর্ধ্বমুখী পুঁজিবাজার

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



বড় মূলধনী কম্পানিতে ঊর্ধ্বমুখী পুঁজিবাজার

বড় মূলধনী কম্পানির শেয়ারের মূল্যবৃদ্ধিতে উত্থানে ফিরেছে দেশের পুঁজিবাজার। এতে বাজার নির্দেশক মূল্যসূচকের পাশাপাশি বেড়েছে লেনদেন। দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) লেনদেন দ্বিগুণ হয়েছে আর বেড়েছে সূচকও। অপর বাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) সূচক ও লেনদেন বেড়েছে।

সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবস গতকাল মঙ্গলবার টেলিকমিউনিকেশন, নন-ব্যাংকিং আর্থিক প্রতিষ্ঠান, প্রকৌশল, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি এবং ওষুধ ও রসায়ন খাতের কম্পানির শেয়ারের দাম বেড়েছে। এতে সূচক বাড়ার সঙ্গে বেড়েছে লেনদেনও। এদিকে ব্যাংক খাতের কম্পানির শেয়ারের দামে সংশোধন হয়েছে। মঙ্গলবার ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৬০৬ কোটি ৮৯ লাখ টাকা। আর সূচক বেড়েছে ২৫ পয়েন্ট। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৩৭৪ কোটি ৩০ লাখ টাকা আর সূচক বেড়েছিল প্রায় ১০ পয়েন্ট। সেই হিসাবে ডিএসইতে সূচক বাড়ার সঙ্গে লেনদেন বেড়েছে ২৩২ কোটি ৫৯ লাখ টাকা। একই সঙ্গে বেশির ভাগ কম্পানির শেয়ারের দামও বৃদ্ধি পেয়েছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, লেনদেন শুরুর পর শেয়ার ক্রয়ের চাপে সূচক বৃদ্ধি পায়। দুপুর ১২টার পর সূচক কিছুটা নিম্নমুখী হলেও পরে আবারও বেড়েছে সূচক। এতে সূচকের ঊর্ধ্বমুখিতায় দিনের লেনদেন শেষ হয়েছে। দিন শেষে সূচক দাঁড়িয়েছে ছয় হাজার ২৭৯ পয়েন্ট। ডিএস-৩০ মূল্যসূচক প্রায় ১০ পয়েন্ট বৃদ্ধি পেয়ে দুই হাজার ২৯১ পয়েন্ট ও ডিএসই শরিয়াহ সূচক এক হাজার ৪০২ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

ডিএসইতে টাকার অঙ্কে লেনদেনের শীর্ষে রয়েছে ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন। কম্পানিটির লেনদেন হয়েছে ২৯ কোটি ১৩ লাখ টাক। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ড্রাগন সোয়েটারের লেনদেন হয়েছে ২০ কোটি ৭৪ লাখ টাকা। আর তৃতীয় স্থানে থাকা লাফার্জ সুরমা সিমেন্টের লেনদেন হয়েছে ১৯ কোটি ৬৫ লাখ টাকা। অন্যান্য শীর্ষ কম্পানি হচ্ছে প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল, ইউনিক হোটেল অ্যান্ড রিসোর্ট, স্কয়ার ফার্মা, ন্যাশনাল টিউবস, লংকাবাংলা ফাইন্যান্স, ইসলামী ব্যাংক ও গোল্ডেন হার্ভেস্ট।

অন্যদিকে সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩৭ কোটি ৩৬ লাখ টাকা। আর সূচক বেড়েছে ৩৮ পয়েন্ট। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৩৪ কোটি ৯২ লাখ টাকা। আর সূচক বেড়েছিল ৫২ পয়েন্ট। দিন শেষে সূচক দাঁড়িয়েছে ১১ হাজার ৭৪০ পয়েন্ট। লেনদেন হওয়া ২৪০ কম্পানির মধ্যে দাম বেড়েছে ১৩৯টির, কমেছে ৭৮টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ২৩ কম্পানির শেয়ারের দাম।


মন্তব্য