kalerkantho


গুরুত্ব পাচ্ছে জ্বালানি খাত

৬৫ বিলিয়ন ডলারের চুক্তি সৌদি-চীন

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৭ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



২০১৫ সাল থেকে সৌদি আরবের সবচেয়ে বড় বাণিজ্যিক অংশীদার চীন। বিশেষ করে মধ্যপ্রাচ্যের এ দেশটির জ্বালানির ওপর বড়ভাবে নির্ভরশীল বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহৎ অর্থনৈতিক দেশটি। ফলে বাণিজ্যিক কারণেই দুই দেশের সম্পর্ক সহযোগিতাপূর্ণ। দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা এবার আরো শক্তিশালী করতে ৬৫ বিলিয়ন ডলারের বাণিজ্য চুক্তি করেছে দুই দেশ।

দীর্ঘ এক মাসের এশিয়া সফরে জাপান, মালয়েশিয়া এবং ইন্দোনেশিয়া সফর শেষে গত বুধবার পেইচিং পৌঁছান সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ। সেখানে তাঁকে স্বাগত জানান চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। গতকাল বৃহস্পতিবার পেইচিংয়ে গ্রেট হলে দুই নেতার  উপস্থিতিতে ১৪টি এমওইউ স্বাক্ষরিত হয় দুই দেশের মধ্যে। এর মধ্যে জ্বালানিসহ বিভিন্ন খাতের চুক্তি রয়েছে। চীনের সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী জ্যাংগ মিংগ সাংবাদিকদের জানান, বিভিন্ন প্রকল্প নিয়ে ৬৫ বিলিয়ন ডলারের চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

জ্বালানির জন্য সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর ওপর নির্ভরশীল হলেও এ অঞ্চলের রাজনীতিতে খুব বেশি মাথা ঘামায়নি চীন। তবে গত বছর দেশটি সিরিয়া যুদ্ধের দুই পক্ষের মধ্যে আলোচনার প্রস্তাব দেয়।

জ্যাংগ মিংগ জানান, দুই নেতার আলোচনায় বাণিজ্যিক বিষয়গুলো ছাড়াও সিরিয়া ও ইয়েমেনের রাজনৈতিক সংকটের বিষয়টিও উঠে আসে। আফ্রিকা, এশিয়া ও ইউরোপকে সংযুক্ত করে বাণিজ্য বাড়াতে চীনের ‘ওয়ান বেল্ট ওয়ান রোড’ নীতির বিষয়টিও উঠে আসে দুই নেতার আলোচনায়।

চীন সৌদি আরবের সবচেয়ে বড় বাণিজ্যিক অংশীদার হলেও গত বছর সৌদি আরবকে সরিয়ে চীনের জ্বালানির বড় সবরাহকারী হয়ে উঠেছে রাশিয়া। এএফপি।


মন্তব্য