kalerkantho


যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্য কমেছে ইইউর

বাণিজ্য ডেস্ক   

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্য কমেছে ইইউর

২০১৩ সালের পর এই প্রথম গত বছর যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্য কমেছে ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ)। ইইউর পরিসংখ্যান দপ্তর ইউরোস্টেটের হিসাব অনুযায়ী ২০১৬ সালে যুক্তরাষ্ট্রে ইইউর পণ্য রপ্তানি কমেছে ২ শতাংশ। একইভাবে যুক্তরাষ্ট্র থেকে আমদানি কমেছে ১ শতাংশ। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের কর্মসংস্থান বাঁচানোর অজুহাত তুলে বাণিজ্য সুরক্ষানীতি অনুসরণ করার ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এতে ইইউর সঙ্গে বাণিজ্য আরো কমতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তবে এখনো যুক্তরাষ্ট্রই ইইউর প্রধান বাণিজ্য অংশীদার। ইইউর মোট রপ্তানির ২০ শতাংশ যায় যুক্তরাষ্ট্রে এবং মোট আমদানির প্রায় ১৫ শতাংশ আসে সবচেয়ে বড় এ দেশটি থেকে। গত এক দশকের হিসাবে দেখা যায়, ইইউ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে বাণিজ্য দুইবার কমেছিল। তাও বৈশ্বিক অর্থনৈতিক সংকটের কারণে ২০০৯ ও ২০১৩ সালে। তবে ২০১৬ সালে বাণিজ্য কমার কারণ অর্থনৈতিক সংকট নয়, বরং বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য কমাকেই এর কারণ হিসেবে মনে করা হচ্ছে। গত বছর বিশ্বে ইইউর রপ্তানি ২ শতাংশ কমে হয় ১ হাজার ৭৪৫ বিলিয়ন ইউরো।

আমদানিও ১ শতাংশ কমে হয় ১ হাজার ৭০৬ বিলিয়ন ইউরো। ইউরোপীয় অঞ্চলের দ্বিতীয় বাণিজ্যিক অংশীদার চীন। গত বছর এ দেশটির সঙ্গে আমদানি-রপ্তানি স্থিতিশীলই ছিল। তবে তৃতীয় বাণিজ্যিক অংশীদার জাপানের সঙ্গেও আমদানি-রপ্তানি কমেছে।

গত বছর ইইউ সবচেয়ে বেশি পণ্য আমদানি করে সুইজারল্যান্ড, জাপান, তুরস্ক এবং কানাডা থেকে। এর বিপরীতে যুক্তরাষ্ট্র, চীন, রাশিয়া, নরওয়ে, দক্ষিণ কোরিয়া ও ভারতে এ অঞ্চলের রপ্তানি কমে। রয়টার্স।


মন্তব্য