kalerkantho


ফ্রিজে নতুন প্রযুক্তির গ্যাস ব্যবহারে বিদ্যুৎ খরচ অর্ধেক

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



বিদ্যুৎ বিলের বাড়তি বোঝা কমাতেই স্বনামধন্য হোম অ্যাপ্লায়েন্স কম্পানিগুলো তাদের রেফ্রিজারেটরের  কুলিং মেকানিজমে R600a গ্যাসের (রেফ্রিজারেন্ট) সংযোজন করছে। এতে প্রায় ৫০ শতাংশ পর্যন্ত কম বিদ্যুৎ খরচ হয়।

ফলে মাস শেষে রেফ্রিজারেটর ব্যবহার বাবদ বিদ্যুৎ খরচ অনেক কম আসে। উন্নত বিশ্ব এই গ্যাসের ব্যবহার অনেক আগেই শুরু করেছে। সম্প্রতি বিশ্বের অন্যান্য প্রান্তেও এর ব্যবহার শুরু হয়েছে। বাংলাদেশেরও কিছু রেফ্রিজারেটর ব্র্যান্ড ইতিমধ্যেই এই R600a গ্যাসের ব্যবহার শুরু করেছে।

প্রতিটি রেফ্রিজারেটরে কুলিং মেকানিজমের অংশ হিসেবে গ্যাস ব্যবহার করা হয়ে থাকে, যা ফ্রিজের কম্পার্টমেন্টকে ঠাণ্ডা রাখে। কিন্তু ঠাণ্ডা করার জন্য সাধারণ রেফ্রিজারেটরে R134a গ্যাস ব্যবহার করা হয়। তবে এই গ্যাস ব্যবহারের কারণে বিদ্যুৎ খরচ যেমন বাড়ে, তেমনি পৃথিবীর বায়ুমণ্ডলের ওজোন স্তরেরও ক্ষতি হয়। তাই অদূর ভবিষ্যতে ওজোন স্তর সুরক্ষায় পরিবেশগত ঝুঁকি ও অত্যধিক বিদ্যুৎ ব্যবহারের কারণে বেশির ভাগ উৎপাদক R600a গ্যাস ব্যবহারে উৎসাহিত হচ্ছে।

নব্বইয়ের দশকে পরিবেশবিষয়ক সংগঠন গ্রিনপিস জার্মানির ‘ফ্রিয়ন’ নামের একটি কম্পানির সঙ্গে মিলে গ্রিনফ্রিজ নামে একটি প্রকল্প হাতে নেয়।

সেই প্রকল্প থেকেই রেফ্রিজারেটরে R600a গ্যাস ব্যবহার শুরু হয়। প্রতিটি রেফ্রিজারেটরে কুলিং মেকানিজমের অংশ হিসেবে গ্যাস ব্যবহার করা হয়ে থাকে, যা ফ্রিজের কম্পার্টমেন্টকে ঠাণ্ডা রাখে। সেকপ ডটকম।


মন্তব্য