kalerkantho


পুঁজিবাজারে আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতে লেনদেন বেড়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



পুঁজিবাজারে আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতে লেনদেন বেড়েছে

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস গতকাল রবিবার পুঁজিবাজারে লেনদেন হয়েছে এক হাজার ২১ কোটি টাকা। যার মধ্যে প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেন হয়েছে ৯৬৬ কোটি ৮৩ লাখ টাকা আর চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন হয়েছে ৫৪ কোটি ৮৭ লাখ টাকা। বেড়েছে মূল্যসূচকও।

এদিকে অন্যান্য বেশির ভাগ খাতের শেয়ারে নিম্নমুখিতা থাকলেও আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের শেয়ার লেনদেনে উল্লম্ফন ঘটেছে। আগের দিনের চেয়ে গতকাল লেনদেন প্রায় দ্বিগুণ হয়েছে। বৃহস্পতিবার সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে আর্থিক খাতে লেনদেন হয়েছিল ৭২ কোটি ৪৫ লাখ টাকা। গতকাল সেই লেনদেন ৭ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৪০ কোটি ১৫ লাখ টাকা।

বাজারের তথ্য পর্যালোচনায় দেখা যায়, গতকাল ব্যাংক খাতের লেনদেন হয়েছে ১২০ কোটি ৮৫ লাখ টাকা। যা মোট লেনদেনের ১৩.৩১ শতাংশ। আর আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের লেনদেন হয়েছে ১৪০ কোটি ১৫ লাখ টাকা। যা মোট লেনদেনের ১৫.৪৪ শতাংশ।

ওষুধ ও রসায়ন খাতের লেনদেনে বড় মূল্যপতন হয়েছে। আগের দিন এই খাতে লেনদেন হয়েছিল ১৭৯ কোটি ৩৩ লাখ টাকা বা মোট লেনদেনের ২০.৭৭ শতাংশ। গতকাল সেই লেনদেন ৫.৯৬ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ১৩৪ কোটি ৪৩ লাখ টাকা।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৯৬৬ কোটি ৮৩ লাখ টাকা আর মূল্যসূচক বেড়েছে ৩৩ পয়েন্ট। এই নিয়ে পাঁচ কার্যদিবস টানা ঊর্ধ্বমুখী হয়েছে বাজার। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৯১৩ কোটি ৫৫ লাখ টাকা আর মূল্যসূচক বেড়েছিল ২৪ পয়েন্ট।

দিনশেষে সূচক দাঁড়িয়েছে পাঁচ হাজার ৫৪৬ পয়েন্ট। ডিএসইএস সূচক ৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে এক হাজার ২৯৪ পয়েন্ট। আর ডিএসই-৩০ সূচক ৮ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১১ পয়েন্ট। লেনদেন হওয়া ৩২৯টি কম্পানির মধ্যে বেড়েছে ১৮৫টি, কমেছে ৮৯টি ও অপরিবর্তিত রয়েছে ৫৫টি কম্পানির শেয়ারের দাম।

লেনদেনের ভিত্তিতে শীর্ষে রয়েছে লঙ্কাবাংলা ফাইন্যান্স। কম্পানিটির লেনদেন হয়েছে ৪৭ কোটি ১১ লাখ টাকা আর দ্বিতীয় স্থানে থাকা অ্যাপোলো ইস্পাতের লেনদেন হয়েছে ২৭ কোটি ৭২ লাখ টাকা। তৃতীয় স্থানে থাকা বারাকা পাওয়ারের লেনদেন হয়েছে ২৭ কোটি ৫২ লাখ টাকা। অন্য শীর্ষ কম্পানিগুলো হলো আরএকে সিরামিকস, আরএসআরএম স্টিল, আইডিএলসি, আল আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক, ডরিন পাওয়ার ও ইস্টার্ন হাউজিং।

আরেক বাজার সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৫৪ কোটি ৮৭ লাখ টাকা আর মূল্যসূচক বেড়েছে ৬৬ পয়েন্ট। লেনদেন হওয়া ২৬১টি কম্পানির মধ্যে বেড়েছে ১৭২টি, কমেছে ৭০টি ও অপরিবর্তিত রয়েছে ১৯টি কম্পানির শেয়ারের দাম।

১০ স্বতন্ত্র পরিচালক : ডিএসই ও সিএসইর স্বতন্ত্র পরিচালক পদে সাতজন করে ১৪ জনের অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। গতকাল কমিশনের সভায় এই অনুমোদন দেওয়া হয়।

ডিএসইতে স্বতন্ত্র পরিচালক হলেন বিচারক সিদ্দিকুর রহমান মিয়া, মনোয়ারা হাকিম আলী, ড. আবুল হাশেম, ওয়ালিউল ইসলাম, এম কায়কোবাদ, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আব্দুল মনসুর মো. আশরাফ খান (এনডিসি, পিএসসি) ও ড. মো. মাসুদুর রহমান।

সিএসইর স্বতন্ত্র পরিচালকরা হলেন ড. এ কে আব্দুল মোমেন, অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল মোহাম্মদ শামীম চৌধুরী (এনডাব্লিউসি, পিএসসি), অধ্যাপক মমতাজ উদ্দিন আহমেদ (এফসিএমএ), ড. মোহাম্মদ আইয়ুব ইসলাম, ড. মইনুল ইসলাম মাহমুদ, অধ্যাপক এস এম সালামত উল্লাহ ভূইয়া ও প্রদীপ পাল (এফসিএমএ, এফসিএ)।


মন্তব্য