kalerkantho


এ বছর আবাদ বেড়েছে ৩৩ শতাংশ

ভারতে রেকর্ড ডাল উৎপাদনে কমবে দাম

বাণিজ্য ডেস্ক   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ভারতে রেকর্ড ডাল উৎপাদনে কমবে দাম

গত জুলাইয়ে ভারতে মূল্যস্ফীতি বেড়ে দুই বছরে সর্বোচ্চ হয়

এবারের মৌসুমে রেকর্ড ডাল উৎপাদনের আশা করছে ভারত। এর ফলে এ বছর ডালের দাম কমবে বলে আশা করছে বাজার সংশ্লিষ্টরা। তাদের মতে, গত বছর প্রোটিনসমৃদ্ধ এ পণ্যের দাম বেড়ে যাওয়ায় এবারের গ্রীষ্ম মৌসুমে কৃষকরা আবাদ বাড়িয়ে দিয়েছে।

বিশ্বে ডালের সবচেয়ে বড় আমদানিকারক ও ভোক্তা দেশ ভারত। এ বছর দেশটির নিজস্ব উৎপাদন ভালো হওয়ায় মূল্যস্ফীতিও কমে আসবে বলে আশা করা যায়। গত জুলাইয়ে দেশটিতে চিনি, সবজি ও ডালের দাম বাড়ার ফলে মূল্যস্ফীতি বেড়ে দুই বছরে সর্বোচ্চ হয়। ভারতের ডাল ও শস্য অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান প্রভিন ডঙ্গরে বলেন, বাম্পার ফলনের কারণে ডালের দাম আস্তে আস্তে কমে আসছে। কিছু কিছু ডালের দাম সর্বোচ্চ বৃদ্ধি থেকে এখন অর্ধেকে নেমে এসেছে।

প্রভিন ডঙ্গরের হিসাব অনুযায়ী এবারের গ্রীষ্মে ভারতে রেকর্ড ৭.৮ মিলিয়ন টন ডাল উত্পাদন হবে। যা এক বছর আগের তুলনায় ৪০ শতাংশ বেশি। যদিও এ ব্যাপারে সরকারের পক্ষ থেকে এখনো কোনো পূর্বাভাস দেওয়া হয়নি।

প্রভিন ডঙ্গরে বলেন, গত বছর দাম বেড়ে যাওয়ায় ভোক্তাদের ভুগতে হয়েছে, আর এবার বাম্পার ফলনে দাম পড়ে গেলে কৃষকদের ভুগতে হবে। দীর্ঘ দুই বছরের খরায় উত্পাদন কমে যাওয়ায় এ বছরের শুরুর দিকে ডালের রেকর্ড দর উঠেছিল ভারতে। কিন্তু পর্যাপ্ত বৃষ্টিপাতে উত্পাদন ভালো হওয়ায় গত কয়েক সপ্তাহে দাম কমে যায়।

ভারতের মহারাষ্ট্রের একজন কৃষক বলেন, ‘আমি এ বছর তুলা উত্পাদনের এলাকা কমিয়ে ডালের আবাদ বাড়িয়েছি ভালো দাম পাওয়ার আশায়। ’ গত ২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ভারতে রেকর্ড ১৪.২ মিলিয়ন হেক্টর জমিতে ডালের আবাদ হয়েছে। যা এক বছর আগের একই সময়ের তুলনায় ৩৩ শতাংশ বেশি। ভারতে প্রতিবছর ২২ মিলিয়ন টন ডাল নিজেদের প্রয়োজন হয়।

অন্যদিকে এ বছর ভারতের পাশাপাশি ডালের আবাদ বাড়িয়েছে কানাডা, অস্ট্রেলিয়াসহ অন্য দেশগুলো। ফলে বৈশ্বিক বাজারে ডালের দাম ক্রমান্বয়ে কমার আশা করা হচ্ছে। রয়টার্স।


মন্তব্য