kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ত্রুটিমুক্ত গ্যালাক্সি নোট ৭ আসছে নতুন মোড়কে

বাণিজ্য ডেস্ক   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ত্রুটিমুক্ত গ্যালাক্সি নোট ৭ আসছে নতুন মোড়কে

স্যামসাংয়ের গ্যালাক্সি নোট ৭ বিস্ফোরণের ঘটনায় প্রতিষ্ঠানটি ব্যবহারকারীদের ফোন প্রতিস্থাপন করে দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছিল। আর ঘোষণা অনুযায়ী আগামীকাল বুধবার থেকে নতুন ফোন বাজারে আনছে স্যামসাং।

যারা ফোন ফিরিয়ে দিয়েছিল এবং প্রতিস্থাপন করার আবেদন জানিয়েছিল তারা নতুন মোড়কে পাবে এই ফোন। পুরনো লোগো সরিয়ে তাতে নতুন লোগো থাকবে এবার।

অস্ট্রেলিয়া এবং ইউরোপের কয়েকটি দেশে পৌঁছে যাবে এই নতুন ফোনটি। ভারতে আগাম বুকিং শুরু হলেও বিক্রি শুরু হয়নি এই ফোনটির। তাই ভারতের বাজারে নতুন পরীক্ষিত ফোনগুলোই প্রথম বিক্রি হবে। প্রতিস্থাপিত নিরাপদ ফোনগুলোকে চিহ্নিত করা হয়েছে ফোনের বাক্সে একটি কালো চৌকো চিহ্ন দিয়ে।

গ্যালাক্সি নোট ৭ বিক্রির দুই সপ্তাহের মধ্যেই বিশ্বব্যাপী ৩৫টি ব্যাটারি বিস্ফোরণের অভিযোগ পায় স্যামসাং। পরবর্তী সময়ে অভিযোগ আমলে নিয়ে অনুসন্ধান করলে এর সত্যতা প্রকাশ পায়। এর পরিপ্রেক্ষিতে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ ফিরিয়ে নেওয়ার ঘোষণা দেয় এবং বিক্রি হওয়া ফোনগুলো বদলে দেবে বলেও জানায়।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের ‘কনজ্যুমার প্রোডাক্ট সেফটি কমিশন’ অবশেষে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ প্রত্যাহারের নির্দেশ জারি করেছে। ব্যবহারকারীদের নিরাপত্তার স্বার্থেই এ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানানো হয়।

কমিশনের ভাষ্য মতে, যুক্তরাষ্ট্রে স্মার্টফোনটির বিক্রি শুরু হয় আগস্ট মাসে। তারপর কিছুদিন পর্যন্ত ডিভাইসটির প্রতি গ্রাহকদের আগ্রহ থাকলেও বিশেষ একটি ত্রুটির কারণে সেই আগ্রহ দূর হয়ে যায়। সেই বিশেষ ত্রুটি হলো, স্মার্টফোনটি অতিরিক্ত গরম হয় এবং তাতে আগুনও ধরে যায়, যা গ্রাহকদের জন্য বেশ বিপজ্জনক। কেননা এর মাধ্যমে যেকোনো গ্রাহকের শরীরে আগুন ধরে যেতে পারে। স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ প্রত্যাহার করা হবে, এটা অনেকটা অনুমিতই ছিল। অবশ্য এর আগেই ২ সেপ্টেম্বর স্যামসাংয়ের পক্ষ থেকে স্মার্টফোনটি পরিবর্তন করে দেওয়ার ঘোষণা দেওয়া হয়। প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে বলা হয়, যে ব্যবহারকারী ডিভাইসটি ব্যবহার করে অনিরাপদ বোধ করছে তাকে সেটা বিনা মূল্যে পরিবর্তন করে দেওয়া হবে।

তখন থেকেই স্যামসাং বিষয়টি নিয়ে অনুসন্ধান শুরু করে এবং এ রকম আগুন ধরে যাওয়ার ৩৫টি ঘটনার কথা জানতে পারে। অবশেষে তারা এটাও খুঁজে বের করতে সক্ষম হয়েছে যে স্মার্টফোনটির ব্যাটারিতে সমস্যা রয়েছে।


মন্তব্য