kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে চাই মৌলিক কনটেন্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে চাই মৌলিক কনটেন্ট

ঢাকার লা মেরিডিয়ান হোটেলে গতকাল ‘ডিজিটাল মার্কেটিং সামিট’ অনুষ্ঠিত হয়

ডিজিটাল মার্কেটিং জগতের খ্যাতিসম্পন্ন পেশাজীবী, নীতিনির্ধারকদের অভিজ্ঞতা বিনিময়ের মাধ্যমে গতকাল তৃতীয়বারের মতো ‘ডিজিটাল মার্কেটিং সামিট’ অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ ব্র্যান্ড ফোরামের আয়োজনে গতকাল শনিবার ঢাকার লা মেরিডিয়ান হোটেলে এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সম্মেলনে পাঁচটি কি-নোট সেশন বা মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন, দুটি কেইস স্টাডি উপস্থাপন, একটি প্যানেল আলোচনা এবং চারটি নির্দিষ্ট ইস্যুভিত্তিক মতবিনিময় অধিবেশনের আয়োজন করা হয়। এবারের সম্মেলনের মূল প্রতিপাদ্য বিষয় ছিল ডিমিস্টিফাইং ডিজিটাল মার্কেটিং বা ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের রহস্য উন্মোচন। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে সাফল্যের জন্য প্রয়োজন মৌলিক কনটেন্ট।

বিপণন বিষয়ে দিনব্যাপী সম্মেলনে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ফেসবুক ক্রিয়েটিভ শপের এশিয়া-প্যাসিফিক অঞ্চলের পরিচালক ফারগাস ও’হেয়ার, আলিবাবা গ্রুপের প্রোডাক্ট অপারেশনস ম্যানেজার মো. মেহেদি রেজা, গ্রে গ্রুপের দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ডিজিটাল লিড রিজিওনাল ডিরেক্টর সুরেশ রামাস্বামী, আইএমআরবির মিডিয়া ও রিটেইল বিজনেসের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট হেমান্ত মেহতা এবং স্পাইডার ডিজিটাল ইনোভেশনসের সিআইও কাজী মনিরুল কবির।

অনুষ্ঠানে ডিজিটাল মার্কেটিং ব্যবহার করে কিভাবে অর্থবহভাবে ক্রেতাদের আকৃষ্ট করা যায় তার ওপর একটি প্যানেল আলোচনার আয়োজন করা হয়। এ প্যানেল আলোচনা পরিচালনা করেন এসএসডি টেকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা হাসান মেহদি। এতে অংশগ্রহণ করেন আরো পাঁচজন প্যানেল সদস্য রেকিট বেনকিজার বাংলাদেশের মার্কেটিং ডিরেক্টর সৈয়দ তানজীম রেজওয়ান, আমরা নেটওয়ার্কের হেড অব মার্কেটিং সোলায়মান সুখন, স্পাইডার ডিজিটাল ইনোভেশনসের সিআইও কাজী মনিরুল কবির, অ্যানালাইজেন বাংলাদেশের কো-ফাউন্ডার ও দ্য পিপলস চ্যাম্প রিদওয়ান হাফিজ এবং মোবিরিচের ডিজিটাল সার্ভিসের হেড সানজিদ হোসেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং জগতের পেশাজীবীদের দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সম্মেলনে চারটি নির্দিষ্ট ইস্যুভিত্তিক মতবিনিময় অধিবেশনের আয়োজন করা হয়। গুগল, আলিবাবা, এসএসডি টেক এবং ওয়েবেবলসহ ডিজিটাল মার্কেটিং জগতের বিভিন্ন খ্যাতনামা প্রতিষ্ঠানের বিশেষজ্ঞরা এসব নির্দিষ্ট ইস্যুভিত্তিক মতবিনিময় অধিবেশন পরিচালনা করেন। তাঁরা বিভিন্ন দৃষ্টিকোণ থেকে ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের নানা বিষয় বিশ্লেষণ করেন।

স্পাইডার ডিজিটাল ইনোভেশনসের সিআইও কাজী মনিরুল কবির বলেন, ডিজিটাল মার্কেটিংয়ে সবই করা সম্ভব। ভোক্তাকে তথ্য সরবরাহ, পণ্য ডিজাইন এবং ই-কমার্স। আর নতুন আবিষ্কারের মাধ্যমে নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হয়। আলিবাবা গ্রুপের প্রোডাক্ট অপারেশনস ম্যানেজার মো. মেহেদি রেজা বলেন, ২০০৩ থেকে ২০১৬ সালে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা প্রায় দ্বিগুণ বেড়েছে। ব্যবহারকারীদের ৩৪ শতাংশ মানুষ শহরে বাস করে, যারা বয়সেও তরুণ।


মন্তব্য