kalerkantho


খালেদারসহ ৫৪৩ আপিল শুনানি শুরু আজ

বিশেষ প্রতিনিধি   

৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



খালেদারসহ ৫৪৩ আপিল শুনানি শুরু আজ

ফাইল ছবি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র বাছাইয়ে রিটার্নিং অফিসারদের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে (ইসি) মোট ৫৪৩টি আপিল আবেদন জমা পড়েছে। আপিলের শেষ দিনে গতকাল বুধবার বিএনপি চেয়ারপারসন কারাবন্দি খালেদা জিয়ার পক্ষেও তিন আসনের জন্য তিনটি পৃথক আপিল আবেদন জমা দেওয়া হয়।

আপিল আবেদন দাখিলে নেওয়ার প্রথম দিনে ৮৪, দ্বিতীয় দিনে ২৩৭ ও তৃতীয় দিনে ২২২টি আবেদন নির্বাচন কমিশনে জমা দেওয়া হয় বলে গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদ এক প্রেস ব্রিফিংয়ে জানান।

সচিব বলেন, ‘৬ থেকে ৮ ডিসেম্বর আপিল গ্রহণের ওপর শুনানি চলবে। নির্বাচন ভবনে এ জন্য এজলাস তৈরি করা হয়েছে। প্রধান নির্বাচন কমিশনারসহ অন্যান্য কমিশনার সেখানে উপস্থিত থেকে আপিল শুনানি গ্রহণ করবেন।’ তিনি বলেন, ‘বৃহস্পতিবার ১ থেকে ১৬০ পর্যন্ত ক্রমিক নম্বরের আবেদনের শুনানি হবে। শুক্রবার ১৬১ থেকে ৩১০ পর্যন্ত এবং শনিবার ৩১১ থেকে ৫৪৩ ক্রমিক নম্বর পর্যন্ত আবেদনের আপিল শুনানি গ্রহণ করবে কমিশন।’

ইসি সচিব বলেন, ‘প্রতিটি আবেদনের আপিল শুনানি শেষে সঙ্গে সঙ্গেই রায় জানিয়ে দেওয়া হবে। সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি যদি উচ্চ আদালতে কমিশনের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করতে চান, তাহলে তাঁকে রায়ের নকল কপি দিয়ে দেওয়া হবে।’

নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের তথ্য অনুসারে বেশির ভাগ আপিল আবেদন হয়েছে মনোনয়নপত্র বাতিলের বিরুদ্ধে। বৈধ প্রার্থীদের বিরুদ্ধেও কিছু আপিল জমা পড়েছে।

প্রসঙ্গত, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে তিন হাজার ৬৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এগুলো যাচাইয়ের পর ৭৮৬ জনের প্রার্থিতা বাতিল করেন রিটার্নিং অফিসাররা। ফলে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ায় দুই হাজার ২৭৯। দেশের ৩৯টি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া দুই হাজার ৫৬৭ জন প্রার্থীর মধ্যে প্রার্থিতা বাতিল হয় ৪০২ জনের। স্বতন্ত্র ৪৯৮ জন প্রার্থীর মধ্যে প্রার্থিতা বাতিল হয় ৩৮৪ জনের। বাতিল হওয়ার পর বৈধ প্রার্থী রয়েছেন ১১৪ জন। ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের ২৬৪টি আসনে ২৮১ জন প্রার্থীর মধ্যে বৈধ প্রার্থী ২৮০ জন, বাতিল একজন। বিএনপির ২৯৫টি আসনে ৬৯৬ জন প্রার্থীর মধ্যে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা ৫৫৫, বাতিল হয়েছেন ১৪১ জন। জাতীয় পার্টির ২১০ আসনে ২৩৩ জন প্রার্থীর মধ্যে বৈধ প্রার্থী ১৯৫ জন, বাতিল হয়েছেন ৩৮ জন।

উল্লেখ্য, নির্বাচন কমিশন ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী আগামী ৯ ডিসেম্বর প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময়। আগামী ৩০ ডিসেম্বর ভোটগ্রহণের তারিখ নির্ধারিত রয়েছে।



মন্তব্য