kalerkantho


মাদক কারবারিদের হামলায় আনসার নিহত ম্যাজিস্ট্রেট জখম

ফেনী প্রতিনিধি   

১০ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



মাদক কারবারিদের হামলায় আনসার নিহত ম্যাজিস্ট্রেট জখম

ফুলগাজীতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের ওপর মাদক বিক্রেতাদের হামলায় একজন আনসার সদস্য নিহত হয়েছেন। তাঁর নাম নওশের আলী। গত বুধবার গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় ফেনীর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সোহেল রানা গুরুতর আহত হয়েছেন। তাঁকে ফেনী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও জেলা প্রশাসনের মাধ্যমে জানা গেছে, গত বুধবার রাত ১২টার দিকে ফেনী জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সোহেল রানার নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত ফুলগাজী উপজেলার মুন্সীরহাট ইউনিয়নের ভারত সীমান্তবর্তী বদরপুর এলাকায় অভিযান চালান। তাঁরা মাদক আস্তানায় অভিযান চালিয়ে কয়েকজন মাদক বিক্রেতাকে আটক করেন। কিন্তু মাদক বিক্রেতাদের সহযোগীরা তাঁদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় আনসার সদস্য নওশের আলী নিহত হন, সোহেল রানা গুরুতর আহত হন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিতে পুলিশ কয়েক রাউন্ড গুলি ছোড়ে। সংঘর্ষে আরো আট-দশজন আহত হয়েছে, যাদের মধ্যে কয়েকজন মাদক কারবারিও রয়েছে।

খবর পেয়ে রাতেই ফুলগাজী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল আলীম মজুমদার, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কিসিঞ্জার চাকমা ও ফেনীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উক্যা সিং ঘটনাস্থলে ছুটে যান।

ফুলগাজী থানার ওসি এস এম মোর্শেদ জানান, হামলায় জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ ও বিজিবি মোতায়েন করা হয়েছে।

নওশেরের লাশ ফেরত : বদরপুরের ঘটনাস্থল ভারতের সীমান্তবর্তী। মাদক বিক্রেতাদের হামলায় নিহত আনসার সদস্য নওশেরের লাশ বিএসএফ সদস্যরা হেফাজতে নেয়। গত বুধবার রাতেই কম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে বিজিবি-বিএসএফ পতাকা বৈঠক হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে লাশ বিজিবির কাছে হস্তান্তর করেছে বিএসএফ।

বদরপুরের খানাবাড়িতে লাশ হস্তান্তরের সময় উপস্থিত ছিলেন ৪ রাইফেলস ব্যাটালিয়নের মেজর মো. আশরাফ ও ভারতের ৮৬ ব্যাটালিয়নের কম্পানি কমান্ডার সুনেন্দ্র কুমার।

ফুলগাজী থানার ওসি এস এম মোর্শেদ জানান, সুমন নামে তাঁদের একজন সোর্সকে অনুপ্রবেশের দায়ে গ্রেপ্তার করেছে ভারতীয় পুলিশ।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, ওই ঘটনায় আরো দু-তিনজন নিখোঁজ রয়েছে। তাদের ব্যাপারে খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে।

বদরপুর থমথমে : গত বুধবার গভীর রাতের ঘটনার পর বদরপুরে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। জনমনে আতঙ্ক রয়েছে। বিভিন্ন পয়েন্টে বিজিবি, পুলিশ ও র‌্যাব সতর্ক পাহারায় রয়েছে।

ফেনীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উক্যা সিং জানান, সেখানে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। র‌্যাব সদস্যরা টহলে রয়েছেন। বিজিবি সদস্যরাও সতর্ক অবস্থায় রয়েছেন। তিনি জানান, হামলার ঘটনায় জড়িতদের আটক করতে চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ। এ ব্যাপারে বিএসএফ সদস্যদের সহায়তা চাওয়া হয়েছে।

আহত ম্যাজিস্ট্রেটের বক্তব্য : ফেনী সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ম্যাজিস্ট্রেট সোহেল রানা বলেন, ‘নিজের জীবন দিয়ে যদি আনসার সদস্য নওশেরকে বাঁচাতে পারতাম, তবে ধন্য হতাম। ’ তিনি বলেন, ‘পরিকল্পনামাফিক বুধবার রাতে ফুলগাজীর বদরপুরে অভিযান চালাই। একটি বাড়িতে গিয়ে কয়েকজন মাদক বিক্রেতাকে হাতেনাতে ধরে ফেলি। কিন্তু তারা হঠাৎ আমাকে দেশি ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপাতে শুরু করে। আর নওশেরকে ধরে নিয়ে যায়। এরপর কী হয়েছে জানি না। ’


মন্তব্য