kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


এসএসসি মডেল টেস্ট : বাংলা প্রথম পত্র

পূর্ণমান : ৭০

লুৎফা বেগম, সিনিয়র শিক্ষক, বিএএফ শাহীন কলেজ, কুর্মিটোলা, ঢাকা   

১৬ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



            সময় : ২ ঘণ্টা ২০ মিনিট

            [বিশেষ দ্রষ্টব্য : প্রদত্ত উদ্দীপকগুলো মনোযোগ দিয়ে পড়ো এবং সংশ্লিষ্ট প্রশ্নগুলোর যথাযথ উত্তর দাও। গদ্য থেকে কমপক্ষে দুটি, পদ্য থেকে দুটি, উপন্যাস থেকে একটি ও নাটক থেকে একটিসহ মোট সাতটি প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে।

একই প্রশ্নের উত্তরে সাধু ও চলিত ভাষারীতির মিশ্রণ দূষণীয়। ]

 

            ক অংশ—গদ্য

১।        আমিন সাহেবকে সবাই অত্যন্ত সৎ ও ভালো মানুষ হিসেবে জানে। অফিসে তিনি সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে কাজ করেন। এ কারণে আমিন সাহেব কিছু সহকর্মীর বিরাগভাজন হন। সুযোগ পেলেই তারা তাকে নানাভাবে ব্যঙ্গ-বিদ্রূপ ও নাজেহাল করার চেষ্টা করে। আমিন সাহেব সব বুঝতে পারলেও তার অবস্থান থেকে এতটুকু সরে আসেননি।

            (ক) ‘হিজরত’ শব্দের অর্থ কী?

            (খ) হজরত আবুবকর (রা.) কী করে সবার সম্বিৎ ফিরিয়ে এনেছিলেন?        

            (গ) সহকর্মীদের ব্যঙ্গ-বিদ্রূপ উপেক্ষা করায় আমিন সাহেবের চরিত্রে মহানবীর কোন গুণটি ফুটে উঠেছে? ‘মানুষ মুহাম্মদ (স.)’ প্রবন্ধের আলোকে ব্যাখ্যা করো।

            (ঘ) আদর্শ মানুষ হতে হলে আমিন সাহেবকে মহানবীর আর কোন গুণগুলো অর্জন করতে হবে? ‘মানুষ মুহাম্মদ (স.)’ প্রবন্ধের আলোকে বিশ্লেষণ করো।                                   

২।        পলান সরকার একজন সমাজসেবক। তিনি একজন গ্রন্থপ্রেমীও। গ্রন্থাগার প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে তিনি বিদ্যার আলো ছড়িয়ে দিতে চান। সরকারও তাঁর উদ্যোগে সহায়তা করার জন্য অনুদান দিয়েছে। পলান সরকারের প্রতিষ্ঠিত লাইব্রেরিতে এলাকার লোকজন বই পড়তে পেরে আলোকিত মানুষ হয়ে উঠছে।

            (ক) ‘ভাঁড়েও ভবানী’—কথাটির অর্থ কী?                

            (খ) ‘ব্যাধিই সংক্রামক, স্বাস্থ্য নয়’—কেন?            

            (গ) পলান সরকারের প্রচেষ্টা ‘বই পড়া’ প্রবন্ধের কোন দিকটির সঙ্গে সাদৃশ্যপূর্ণ? বুঝিয়ে দাও?  

            (ঘ) ‘আলোকিত মানুষ হওয়ার জন্য বই পড়ার বিকল্প নেই’— উদ্দীপক ও ‘বই পড়া’ প্রবন্ধের আলোকে মন্তব্যটির যথার্থতা যাচাই করো।        

৩।       আসাদের মা কোনো রকম ভূমিকা না করে বলেন, ‘আসাদ চেয়েছিল দেশটিকে স্বাধীন করতে। দেশ স্বাধীন হয়েছে। আমি আমার আসাদকে দিয়েছি। ওকে কোলে করে বিধবা হয়েছিলাম। এতটা বড় করেছিলাম। আমার আর কিছু চাওয়ার নেই। তবু বলি, দেশের জন্য যদি কাছে ডাকেন, আসব। আমি শহীদের মা। আমি যে শহীদ আসাদের মা। ’

            (ক) ‘গোয়েবলস’—কে?                     

            (খ) স্বাধীন বাংলা বেতারকেন্দ্রের শিল্পীরা ছদ্মনাম ব্যবহার করতেন কেন?            

            (গ) ‘একাত্তরের দিনগুলি’ রচনার কোন বিষয়টি উদ্দীপকে প্রতিফলিত হয়েছে? ব্যাখ্যা করো।

            (ঘ) ‘ত্যাগ, সাহস ও দেশপ্রেমের দিক থেকে উদ্দীপকের আসাদের মা এবং জাহানারা ইমাম একসূত্রে গাঁথা’—মন্তব্যটির যথার্থতা যাচাই করো।

৪।        গাহি সাম্যের গান

            মানুষের চেয়ে বড় কিছু নাই, নহে কিছু মহীয়ান।

            নাই দেশ-কাল-পাত্রের ভেদ অভেদ ধর্ম জাতি

            সব দেশে সব কালে ঘরে-ঘরে তিনি মানুষের জ্ঞাতি।

            (ক) ‘মুষ্টিযোগ’ শব্দের অর্থ কী?    

            (খ) কাঙালিকে অনভিজ্ঞ বলা হয়েছে কেন?

            (গ) উদ্দীপকের সঙ্গে ‘অভাগীর স্বর্গ’ গল্পের সমাজচিত্রের যে বৈসাদৃশ্য রয়েছে, তা ব্যাখ্যা করো।                

(ঘ)       উদ্দীপকের বিষয়বস্তুতে ‘অভাগীর স্বর্গ’ গল্পের সমগ্র ভাব প্রতিফলিত হয়নি—মন্তব্যটির সত্যতা যাচাই                                                                                     করো।

            খ অংশ—পদ্য

৫।        আসমানীদের দেখতে যদি তোমরা সবে চাও

            রহিমুদ্দির ছোট্ট বাড়ি রসুলপুরে যাও।

            বাড়ি তো নয় পাখির বাসা ভেন্না পাতার ছানি

            একটু খানি বৃষ্টি হলেই গড়িয়ে পড়ে পানি।

            একটু খানি হাওয়া দিলে ঘর নড়বড় করে।

            তারি তলে আসমানীরা—থাকে বছর ধরে।

            (ক) ‘কানাকুয়া’ কোথায় ডাকে?    

            (খ) মায়ের দ্বিগুণ জ্বালা বাড়ত কেন?

            (গ) ‘উদ্দীপকটি ‘পল্লী জননী’ কবিতার কোন দিককে ধারণ করেছে?           

            (ঘ) উদ্দীপকটিতে ‘পল্লী জননী’ কবিতার মূল ভাবই অপ্রকাশিত। কথাটির সত্যতা যাচাই করো।            

৬।       এসেছে বরষা, এসেছে নবীনা বরষা

            গগন ভরিয়া এসেছে ভুবন ভরসা

            দুলিছে পবনে শন শন বনবীথিকা

            গীতময় তরুলতিকা

(ক)      ‘বৃষ্টি’ কবিতাটির রচয়িতার নাম কী?

(খ)       ‘বিদ্যুৎ রূপসী পরি’ বলতে কবি কী বুঝিয়েছেন?       

(গ)       ‘গগন ভরিয়া এসেছে ভুবন ভরসা’—উদ্দীপকের এ বক্তব্যের সঙ্গে ‘বৃষ্টি’ কবিতার সাদৃশ্য ব্যাখ্যা করো।              

(ঘ)       ‘উদ্দীপকে ‘বৃষ্টি’ কবিতার যে দিকগুলো অনুপস্থিত, তা ব্যাখ্যা করো।                                 

৭।        ‘গানে আর ভিন্ন কী সুরের ব্যঞ্জনা

            যখন হানাদারবধ সংগীতে

            ঘৃণার প্রবল মন্ত্রে জাগ্রত

            স্বদেশের তরুণ হাতে

            নিত্য বেজেছে অবিরাম

            মেশিনগান, মর্টার, গ্রেনেড

(ক)      কবি কী উড়িয়ে জননী বঙ্গে এসেছে?

(খ)       ‘কবিতার হাতে রাইফেল’—কথাটি কেন বলা হয়েছে?                         

(গ)       উদ্দীপকে ‘সাহসী জননী বাংলা’ কবিতার প্রতিফলিত দিকটি ব্যাখ্যা করো।                 

(ঘ)       “উদ্দীপকে প্রতিফলিত ভাবনা ‘সাহসী জননী বাংলা’ কবিতার সামগ্রিক রূপ নয়। ” মন্তব্যটি মূল্যায়ন করো।                    

গ অংশ—উপন্যাস

৮।       রাত থম থম স্তব্ধ নিঝুম

            ঘোর ঘোর আঁধিয়ার,

            নিঃশ্বাস ফেলি তাও শোনা যায়,

            নাই কোথা সাড়া কার।

(ক)      মধুকে বুধা কী বলে ডাকতে বলেছিল?             

(খ)       ‘আধা পোড়া বাজারটার দিকে তাকিয়ে ওর চোখ লাল হতে থাকে। ’ কেন?       

(গ)       উদ্দীপকে ‘কাকতাড়ুয়া’ উপন্যাসের যে বিশেষ দিকটি ফুটে উঠেছে, তা ব্যাখ্যা করো।

(ঘ)       ‘উদ্দীপকের পরিবেশ বুধার জীবনে প্রতিফলিত হওয়ায় বুধাকে ভিন্ন জগতের মানুষে পরিণত করেছে’—বিশ্লেষণ করো।    

৯।        দশম শ্রেণির ছাত্র সুহৃদ। বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ তাকে মুক্তিযুদ্ধে অনুপ্রাণিত করে। কিন্তু বয়সে ছোট বলে ভারতে গিয়ে প্রশিক্ষণ নিয়ে আসতে পারে না। তাই নিজে থেকেই রাতের অন্ধকারে দেশীয় রাজাকারদের ঘায়েল করে। মুক্তিযোদ্ধারা তার দেশপ্রেমে মুগ্ধ হয়ে তাকে ছোট ছোট অপারেশনের দায়িত্ব অর্পণ করে।

(ক)      বাঙ্কারের তদারকি করছিল কে?              

(খ)       যুদ্ধের সময় বুধা গ্রাম ছেড়ে পালাল না কেন?

(গ)       উদ্দীপকের সুহৃদের সঙ্গে ‘কাকতাড়ুয়া’ উপন্যাসের সাদৃশ্যপূর্ণ চরিত্র কোনটি? ব্যাখ্যা করো।        

(ঘ)       ‘বহিঃশত্রুর আক্রমণ ঠেকাতে দেশপ্রেমিকের মন উদ্বেলিত হয় দেশপ্রেমে’—উদ্দীপক ও ‘কাকতাড়ুয়া’ উপন্যাসের আলোকে বিশ্লেষণ করো।       

            নাটক

১০। ভাগ্যের পরিবর্তনের আশায় পলাশতলা গ্রামে এসে হাজির হয় রহিম শেখ। গ্রামের শেষ প্রান্তে একটি পোড়াবাড়ি আবিষ্কার করে সেটাকে জিন্দা পীরের আস্তানা বলে উল্লেখ করে। ওই স্থানটি অবহেলা, অযত্নে ফেলে রাখার কারণেই যে তাদের গ্রামে খরা, দুর্ভিক্ষ চলছে—এ কথা বোঝাতে সক্ষম হলে অজ্ঞ, অশিক্ষিত গ্রামবাসী ভয় ও অপরাধবোধে মাথানত করে রাখে।

(ক)      ‘কত জমিদারি এসেছে গিয়েছে’—উক্তিটি কার?

(খ)       হাশেম দুই হাতে মুখ ঢেকে কাঁদতে শুরু করল কেন?                      

(গ)       উদ্দীপকটি ‘বহিঃপীর’ নাটকের সঙ্গে কোন দিক দিয়ে সম্পর্কযুক্ত? ব্যাখ্যা করো।  

(ঘ)       ‘উদ্দীপকের পীরভক্তি ও ‘বহিঃপীর’ নাটকের পীরভক্তি একসূত্রে গাঁথা—বিশ্লেষণ করো।

১১।      আগে সমাজে বিভিন্ন কুসংস্কার প্রচলিত ছিল। একদিকে ভণ্ডপীরদের উৎপাত ছিল, অন্যদিকে জমিদাররা মানুষের ওপর নির্যাতন করত।

(ক)      সাধারণত নাটকের উপাদান কয়টি?                   

(খ)       ‘আর আপনাকে আমি দেখতেও চাই না। ’ তাহেরা কেন এ কথা বলেছে? বুঝিয়ে লেখো।            

(গ)       উদ্দীপকের জমিদার ও ভণ্ডপীরের সঙ্গে ‘বহিঃপীর’ নাটকের কোন দিকটি প্রতিফলিত হয়েছে—ব্যাখ্যা করো।   

(ঘ)       ‘‘উদ্দিপকের বিষয়টি ‘বহিঃপীর’ নাটকের মূল চেতনাকে ধারণ করেছে। ”—এ মন্তব্যটির যথার্থতা নিরূপণ করো।   


মন্তব্য