kalerkantho


তাবকা বাঁধ উড়িয়ে দেওয়ার শঙ্কায় সিরীয় কৃষকরা

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৬ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



ইসলামিক স্টেট (আইএস) জঙ্গিরা সিরিয়ার রাকায় তাদের অবস্থান নিরাপদ রাখতে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধের গেটগুলো খুলে দিতে পারে—এমন আশঙ্কা এখন ইউফ্রেতিস নদীর তীরের কৃষকদের মধ্যে। এতে তাদের ছোট গ্রামগুলো ডুবে যেতে পারে।

সিরিয়ায় আইএস জঙ্গিদের শক্তিশালী অবস্থান রাকা শহরের কাছাকাছি ইউফ্রেতিস নদীতে এক মাস ধরে পানির উচ্চতা বেড়ে চলেছে।

নদীর পূর্ব তীরের বাসিন্দাদের আশঙ্কা, বিরোধী শক্তির অগ্রযাত্রায় বাধা সৃষ্টি করতে সিরিয়ার সবচেয়ে বড় বাঁধ তাবকা ধ্বংস করে দিতে পারে আইএস। ইউফ্রেতিস নদীর তীরে কৃষিপ্রধান গ্রামগুলোর একটি তুওয়াহিনা। তাবকা বাঁধ থেকে প্রায় ছয় মাইল দূরের গ্রামটি সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থিত সিরিয়ান ডেমোক্রেটিক ফোর্সেস (এসডিএফ) নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে। এখানকার বাসিন্দা ৬৭ বছর বয়স্ক আবু হোসেন বলেছেন, ‘যদি আইএস তাবকা বাঁধ ধ্বংস করে দেয়, তাহলে নদীর দক্ষিণাঞ্চলের অংশ পানির নিচে চলে যাবে। তারা এমনই ভয়ংকর যে সৃষ্টিকর্তাকেও ভয় পায় না। যদি কেউ সৃষ্টিকর্তাকে ভয় না পায়, তাহলে তাদের আমি ভয় পাই। ’

অন্য এক বাসিন্দা রাহিল হাসান মাহমুদ বলেন, ‘আমরা জানতে পেরেছি, আইএস বাঁধ উড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে। যদি তা-ই হয়, তাহলে রাকা ও দিয়ের এজরের বেশির ভাগ অঞ্চল পানিতে ডুবে যাবে।

এ ছাড়া অন্য এলাকায় ফসল ও পশু মারা যাবে। তারা শেষ অবলম্বন হিসেবে গ্রামগুলো ডুবিয়ে দেবে। ’ রাকার যেখানে আইএসের শক্তিশালী অবস্থান সেখান থেকে তাবকা বাঁধের দূরত্ব মাত্র ৫০০ মিটার। এই তাবকা বাঁধের নিয়ন্ত্রণ নেওয়া এখন এসডিএফের প্রধান লক্ষ্য। প্রায় এক মাস ধরে এ জন্য তারা অভিযান চালাচ্ছে। সূত্র : এএফপি।


মন্তব্য