kalerkantho


যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে উঁচু বাঁধটি ভেঙে পড়ার ঝুঁকিতে

১ লাখ ৮০ হাজার মানুষকে সরে যাওয়ার নির্দেশ

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে উঁচু বাঁধটি ভেঙে পড়ার ঝুঁকিতে

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার লেক অরোভিলে ভারি বৃষ্টিপাতে জমা হওয়া বাড়তি পানি ছেড়ে দিয়ে বাঁধ রক্ষার আপ্রাণ চেষ্টা চলছে। ক্ষতিগ্রস্ত পানি নিষ্কাশন পথের এ ছবি রবিবার তোলা। ছবি : এএফপি

ভারি বৃষ্টিপাতের কারণে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের উত্তরাঞ্চলে সবচেয়ে উঁচু অরোভিল বাঁধটি ভেঙে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। বাঁধের চ্যানেলের পানি উপচে পড়ায় নিরাপত্তাজনিত কারণে এক লাখ ৮০ হাজারের বেশি মানুষকে বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র চলে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

কর্মকর্তারা জানান, ৭৭০ ফুট উঁচু অরোভিল বাঁধের অতিরিক্ত পানি বেরিয়ে যাওয়ার জন্য জরুরি যে পথ রয়েছে তা ধসে পড়ার উপক্রম হয়েছে। গত রবিবার রাতে বাটি কাউন্টির শেরিফ কোরি হোনিয়া বলেন, স্থানীয় বাসিন্দাদের অন্যত্র চলে যাওয়ার যে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে তা বহাল থাকবে। ভারি বৃষ্টিপাত ও তুষারপাতের পর জলাধারের পানির স্তর বেড়ে গেছে।

স্যাক্রামেন্টোর ৬৫ মাইল উত্তরে অবস্থিত লেক অরোভিলের ওপর নির্মিত বাঁধটির ৫০ বছরের ইতিহাসে এই প্রথম এমন সংকট তৈরি হলো। কয়েক বছর ধরে ওই এলাকায় মারাত্মক খরা চলছিল। অরোভিলের বাসিন্দাদের উত্তর দিকে যেতে বলা হয়েছে। শহরটিতে ১৬ হাজার লোকের বাস।

গত শুক্রবার ক্যালিফোর্নিয়ার গভর্নর জেরি ব্রাউন ফেডারেল ইমার্জেন্সি ম্যানেজমেন্ট এজেন্সিকে বন্যা ও ভূমিধসের কারণে একটি বড় ধরনের দুর্যোগ জারির নির্দেশ দিয়েছেন।

বাঁধ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, অরোভিল হ্রদের উপচে পড়া পানির চাপে বাঁধটিতে একটি গর্ত তৈরি হওয়ায় এটি যেকোনো সময় ভেঙে পড়তে পারে।

এতে ফেদার নদী অববাহিকার গ্রামীণ জনপদগুলো বন্যার পানিতে ভেসে যেতে পারে।

এক টুইটার বার্তায় য়ুবা কাউন্টির জরুরি বিভাগ সরে যাওয়া বাসিন্দাদের উত্তর দিকে অরোভিল নদী বরাবর না গিয়ে পূর্ব, দক্ষিণ বা পশ্চিম দিকে সরে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছে। সূত্র : বিবিসি।


মন্তব্য