kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ফিলিপাইনে মাদকবিরোধী লড়াই

‘সবাইকে হত্যা করতে’ আরো সময় চান দুতার্তে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



‘সবাইকে হত্যা করতে’ আরো সময় চান দুতার্তে

মাদক ব্যবসায়ের সঙ্গে জড়িত ‘সবাইকে হত্যা করা’ সম্ভব না হওয়ার কারণে ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতার্তে মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধের মেয়াদ আরো ছয় মাস বাড়ানোর প্রয়োজনীয়তার কথা বলেছেন। নিজ শহর দাভাওতে গত রবিবার সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগ পর্যন্ত বুঝতে পারিনি, এই দেশে মাদক কত ব্যাপক আর কত মারাত্মক আকারে ছড়িয়ে রয়েছে।

এদিকে দুতার্তের মাদকবিরোধী লড়াইয়ে প্রয়াত এক ব্রিটিশ ব্যারনের কন্যাও ম্যানিলার রাস্তায় নিহত হয়েছেন। তাঁর বিরুদ্ধে নিজের কাছে মাদক রাখার অভিযোগ ছিল এবং এই অভিযোগের মামলায় তিনি জামিনে ছিলেন।

গত মে মাসে নির্বাচনে জয়ের পর দুতার্তে ছয় মাসের মধ্যে দেশকে অবৈধ মাদকমুক্ত করার ঘোষণা দিয়েছিলেন। এ জন্য প্রয়োজনে হাজারো বা লাখো অপরাধী হত্যা করা হবে বলে জানিয়েছিলেন। এরই মধ্যে দেশকে মাদকমুক্ত করতে তিন হাজার জন হত্যার শিকার হয়েছে। অসম্পূর্ণ এই কাজকে সম্পূর্ণ আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘কাজ শেষ করতে আরো মোটামুটি ছয় মাস সময় দরকার। যদি তাদের সবাইকে হত্যা করতে নাও পারি তাহলে শেষ পর্যন্ত এই সংখ্যা অবশ্যই বেশি হবে। ’

পুলিশ জানিয়েছে, দুতার্তে দায়িত্ব নেওয়ার পর দুই মাসের কিছু বেশি সময়ের মধ্যে তারা ১১০৫ জন সন্দেহভাজন মাদক ব্যবসায়ীকে হত্যা করেছে। মানবাধিকার সংস্থা জানিয়েছে, আরো ২০৩৫ জন আততায়ীর হাতে নিহত হয়েছে। সংস্থার মতে দুতার্তের আহ্বানে সাধারণ নাগরিকের হাতে এসব হত্যার ঘটনা ঘটেছে। এভাবে বিচারবহির্ভূত হত্যার ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্র, ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন এবং জাতিসংঘ সমালোচনা করেছে। দুতার্তে অবশ্য এসব সমালোচনায় কান দেননি। বরং নিজের অভিযান চালিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।

ব্রিটিশ ব্যারনের কন্যা নিহত : ফিলিপাইনকে অবৈধ মাদকমুক্ত করতে দুতার্তের অভিযানের ফাঁদে মারা গেছেন ব্রিটিশ ব্যারন প্রয়াত লর্ড ময়নিহানের কন্যা মারিয়া অরোরা ময়নিহান। ৪৫ বছর বয়সী মারিয়ার মৃতদেহ গত ১০ সেপ্টেম্বর ম্যানিলার রাস্তায় পাওয়া যায়। আততায়ীর গুলিতে নিহত হন তিনি।

সূত্র : এএফপি।


মন্তব্য