kalerkantho

শুক্রবার । ২০ জানুয়ারি ২০১৭ । ৭ মাঘ ১৪২৩। ২১ রবিউস সানি ১৪৩৮।


তুরস্কে দুই সাংবাদিকের বিচার শুরু

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৬ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



তুরস্কে দুই সাংবাদিকের বিচার শুরু

ক্যান দুনদার

তুরস্কে গুপ্তচরবৃত্তি ও অন্যান্য গুরুতর অপরাধের অভিযোগে শীর্ষস্থানীয় দুই সাংবাদিকের বিচার শুরু হয়েছে। সিরিয়ার সংঘাতে তুরস্কের ভূমিকা সম্পর্কে একটি প্রতিবেদন প্রকাশের ঘটনায় তাদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হতে পারে। প্রেসিডেন্ট রিসেফ তাইয়িপ এরদোয়ান ওই প্রতিবেদনের বিষয়ে ক্ষুব্ধ হয়েছেন। অন্যদিকে দেশটির বিশিষ্ট লেখক-সাহিত্যিকরা দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

কামহুরিয়াত সংবাদপত্রের প্রধান সম্পাদক ক্যান দুনদার ও আংকারা ব্যুরোপ্রধান এরদেম গুলকে ‘গুপ্তচরবৃত্তির জন্য’ রাষ্ট্রীয় গোপন তথ্য ফাঁস, ‘সহিংস’ উপায়ে সরকার উত্খাত এবং ‘একটি সশস্ত্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে’ সহায়তা করার অভিযোগে গতকাল শুক্রবার ইস্তাম্বুলের একটি আদালতে হাজির করা হয়।

গত মে মাসে সরকারবিরোধী শীর্ষ সংবাদপত্রে এ প্রতিবেদন প্রকাশের ঘটনায় ওই দুই সাংবাদিক তিন মাস ধরে আটক রয়েছেন। প্রতিবেদনে অভিযোগ করা হয়, সিরিয়ায় বিদ্রোহীদের কাছে অবৈধভাবে অস্ত্রের চালান পাঠাতে চায় সরকার। এ প্রতিবেদন আলোড়ন সৃষ্টি করে এবং সিরিয়ার সংঘাতে সরকারের ভূমিকা ও দেশটিতে ইসলামপন্থী সংগঠনগুলোর সঙ্গে সরকারের কথিত সম্পর্ক নিয়ে জল্পনা-কল্পনা বৃদ্ধি পায়। এরদোয়ান ব্যক্তিগতভাবে দুনদারকে সতর্ক করে দেন যে তাঁকে এ প্রতিবেদনের জন্য ‘চরম মূল্য’ দিতে হবে।

দুনদার ও গুলের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলাটিকে অনেকেই তুরস্কে সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতার সঙ্গে সম্পর্কিত বলে মনে করছেন। সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতাকে কেন্দ্র করে তুর্কি সরকারকে তীব্র আন্তর্জাতিক সমালোচনার সম্মুখীনও হতে হয়েছে সাম্প্রতিক সময়ে। চলতি মাসের প্রথম দিকে আদালতে রুল জারির কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই রাষ্ট্রীয় নিয়ন্ত্রণাধীনে নেওয়া হয় দেশটির সর্ববৃহৎ সংবাদপত্র ‘জামান’কে। সমালোচকদের মতে, সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে করা মামলাটি রাজনৈতিকভাবে প্রভাবিত। বেশ কয়েকজন বিশিষ্ট লেখক এবং সাহিত্যিক এই মামলার প্রতিবাদ জানিয়েছেন। সূত্র : এএফপি।


মন্তব্য