kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আয়লান কুর্দির মৃত্যুর ঘটনায় দুজনের জেল

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

৫ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



পাচারকারীদের নৌকায় সাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে যাওয়ার সময় দুর্ঘটনায় তিন বছরের আয়লান কুর্দিসহ পাঁচজনের মৃত্যুর ঘটনায় দুই সিরীয়কে চার বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছেন তুরস্কের একটি আদালত।

সাজা পাওয়া দুজন হলো মুফাওয়াকা আলাবাশ ও আসেম আল ফরহাদ।

তাদের মানবপাচারের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। তবে ‘ইচ্ছাকৃতভাবে অবহেলার মাধ্যমে মৃত্যু’র অভিযোগ থেকে তাদের মুক্তি দিয়েছেন বদরুম শহরের আদালত।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে তুরস্কের এই বদরুম শহরের সৈকতেই বালির মধ্যে মুখ থুবড়ে পড়ে থাকা ছোট্ট আয়লান কুর্দির নিথর দেহের ছবি বিশ্ববিবেক নাড়িয়ে দেয়। ওই একটি ছবিই শরণার্থীদের চরম দুর্দশার চিত্র বিশ্ববাসীর সামনে তুলে ধরে। এর জেরে শরণার্থী প্রশ্নে নড়েচড়ে বসে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়।

বাবা আব্দুল্লাহ ও মা রিহানের সঙ্গে তিন বছর বয়সী আয়লান ও তার পাঁচ বছর বয়সী ভাই গালিব এজিয়ান সাগর পেরিয়ে গ্রিসে পৌঁছানোর চেষ্টা করেছিল। কিন্তু তাদের নৌকা ডুবে গেলে আয়লান, গালিব ও রিহান মারা যায়। বেঁচে যান বাবা আব্দুল্লাহ।

সাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে যাওয়ার সময় নৌকা ডুবে গত বছর আট শতাধিক শরণার্থীর মৃত্যু হয়েছে।

এখনো প্রতিদিন শত শত ইউরোপমুখী শরণার্থী তুরস্ক থেকে সমুদ্র পেরিয়ে গ্রিসে ভিড়ছে। বলা হচ্ছে, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর শরণার্থী প্রশ্নে এটিই ইউরোপের সবচেয়ে বড় সংকট।

ছুরিকাঘাতে শরণার্থী নিহত : সুইডেনের একটি আশ্রয় শিবিরে ছুরিকাঘাতে একজন শরণার্থী নিহত হয়েছেন। ১৯ বছর বয়সী ওই শরণার্থীর নিহতের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তিন শরণার্থীকে প্রেপ্তার করেছে পুলিশ। সূত্র : বিবিসি।


মন্তব্য