kalerkantho


হট জব

৪০০ বেসামরিক পদে লোক নেবে সেনাবাহিনী

২৩ আগস্ট, ২০১৭ ০০:০০



৪০০ বেসামরিক পদে লোক নেবে সেনাবাহিনী

কন্ট্রোলার অব সিভিলিয়ান পার্সোনাল, সেনা সদর, এজির শাখা পিএ পরিদপ্তর বেসামরিক বিভিন্ন পদে ৪০০ জন লোক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। নিয়োগসংক্রান্ত সব তথ্য পাওয়া যাবে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ওয়েবসাইটে (www.army.mil.bd)।

সব পদে বেতন-ভাতা পাওয়া যাবে জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুসারে।

পদ ও যোগ্যতা : ডেমোনেস্ট্রেটর পদে নেওয়া হবে ১ জন। যোগ্যতা পদার্থ, রসায়ন অথবা গণিতে বিএসসি পাস। লাইব্রেরিয়ান ১, স্টোরম্যান (টেকনিক্যাল) ১১, ভিউয়ার ১, ক্যাটালগার ২, স্টোর সুপারভাইজার ১, এক্সচেঞ্জ অপারেটর ১, মিল্ক রেকর্ডার ৫, অফিস গুদাম রক্ষক ১ ও অফিস করণিক/অফিস করণিক কাম টাইপিস্ট ১৯টি পদের যোগ্যতা এইচএসসি। টেকনিক্যাল পদগুলোর জন্য থাকতে হবে সংশ্লিষ্ট বিষয়ে দক্ষতাসহ ট্রেড কোর্স সনদ। অফিস করণিক/অফিস করণিক কাম টাইপিস্ট পদের জন্য মুদ্রাক্ষরে গতি প্রতি মিনিটে ইংরেজি ও বাংলায় যথাক্রমে ৩০ ও ২০ শব্দ। এসএসসি যোগ্যতার পদগুলো হলো ইনসেমিনেটর ১, ড্রাফটসম্যান ২, বুক বাইন্ডার ২, ফায়ারম্যান ১০, নিরাপত্তা পরিদর্শক ১,  হেড মেকানিক ১, ওয়েল্ডার (এইচএস-১) ১, ফিটার সি ভেহিকল (এসএস-২) ২, মেশিনিস্ট (এইচএস-১) ১, টেলিকম টেকনিশিয়ান (এইচএস-১) ১, ফিটার এমভি (এসএস-২) ১ ও ফিটার সি ভেহিকল (এইচএস-১) ১। টেকনিক্যাল পদগুলোর জন্য সরকার অনুমোদিত ভোকেশনাল ট্রেড কোর্স পাস হতে হবে। অষ্টম শ্রেণি বা সমমানের যোগ্যতার পদগুলো হলো নিরাপত্তা প্রহরী ১৫, বাবুর্চি ৩৯, টেইলার ৪, লস্কর ১, ফিটার এমভি (এইচএস-২) ১, টিনস্মিথ ২, সার্চার ৩, ইনগ্রেভার ১, ফটোকপি অপারেটর ১, অফিস সহায়ক/বার্তাবাহক ১৯, মেসওয়েটার ৪৯, আর্মোরার (স্কিল্ড) ১ ও ড্রাইভার/এমটি ড্রাইভার ৩।

সংশ্লিষ্ট বিষয়ে দক্ষতাসহ টেকনিক্যাল পদের জন্য ভোকেশনাল ট্রেড সনদ থাকতে হবে। পঞ্চম শ্রেণি পাস হলেই করা যাবে ইউডিসি ৩, ইউএসএম ৬০, মালি ৬ ও ওয়াসারম্যানের ৫টি পদে আবেদন। টিন অ্যান্ড কপার স্মিথ ১, গোয়ালা ৬, ফায়ার ক্রু ১, ফার্ম লেবার (কালটিভেশন) ৪, পরিচ্ছন্নতাকর্মী ৬৩, আয়া ৪, বারবার ১, সহিস ১, ওয়ার্ডবয় ৯, কার্পেন্টার ৭, পেইন্টার ১, সহকারী বাবুর্চি ২০, ফার্ম লেবার (অ্যানিমেল অ্যাটেনডেন্ট) ২ পদে অক্ষরজ্ঞান জানা থাকলেই আবেদন করা যাবে। সংশ্লিষ্ট কাজে অভিজ্ঞদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। সব পদের জন্যই প্রার্থীর বয়স ৩১ আগস্ট ২০১৭ তারিখে ১৮ থেকে ৩০ বছর। তবে মুক্তিযোদ্ধাদের সন্তানদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা সর্বোচ্চ ৩২ বছর।

আবেদন যেভাবে : নির্ধারিত ফরমে আবেদনপত্র পাঠাতে হবে সেনাবাহিনীর ভিন্ন ভিন্ন দপ্তরে। সেনাবাহিনীর ওয়েবসাইটে পদ অনুসারে আবেদন পাঠানোর ঠিকানা পাওয়া যাবে। ফরম ওয়েবসাইটে প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তির শেষ পৃষ্ঠায় দেওয়া আছে। ফরম ডাউনলোড করে অথবা কম্পিউটারে কম্পোজ করে কম্পিউটারে বা হাতে লিখে পূরণ করা যাবে। আবেদন পাঠানোর শেষ তারিখ ৩১ আগস্ট।

যা লাগবে : আবেদন ফরমে প্রয়োজনীয় তথ্যের সঙ্গে সম্প্রতি তোলা চার কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি নির্ধারিত স্থানে লাগাতে হবে। পদ অনুসারে শিক্ষাগত যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতার সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্র/জন্ম নিবন্ধন সনদ, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান/পৌরসভার মেয়র/সিটি করপোরেশনের ওয়ার্ড কমিশনার বা কাউন্সিলর কর্তৃক নিজ জেলা থেকে নাগরিকত্ব সনদ ও যথাযথ কর্তৃপক্ষ কর্তৃক প্রদত্ত চারিত্রিক সনদপত্র জমা দিতে হবে। সংশ্লিষ্ট পদের বিপরীতে ওয়েবসাইটে প্রকাশিত দপ্তরের অনুকূলে ২০০ টাকার পে-অর্ডার/ব্যাংক ড্রাফট (অফেরতযোগ্য) ও প্রার্থীর পোস্ট কোড উল্লেখ করে বর্তমান ঠিকানাসংবলিত একটি ফেরত খাম ১০ টাকার ডাকটিকিটসহ আবেদনের সঙ্গে জমা দিতে হবে।

নিয়োগ পরীক্ষা : যোগ্য প্রার্থী নির্বাচনে লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষা নেওয়া হবে। আবেদন প্রাপ্তির পর যাচাই-বাছাই করে লিখিত পরীক্ষর জন্য প্রার্থীদের দেওয়া বর্তমান ঠিকানায় প্রবেশপত্র পাঠানো হবে। লিখিত পরীক্ষার তারিখ, সময় ও স্থান প্রবেশপত্রে উল্লেখ থাকবে। অক্ষরজ্ঞান জানা পদগুলোর জন্য লোকবল বাছাইয়ে নেওয়া হতে পারে শুধু মৌখিক পরীক্ষা। সব পদের মৌখিক পরীক্ষার সময় শিক্ষাগত যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতার সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্র/জন্ম নিবন্ধন সনদ, ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান/পৌরসভার মেয়র/সিটি করপোরেশনের ওয়ার্ড কমিশনার বা কাউন্সিলর কর্তৃক প্রদত্ত সনদের মূল কপি ও জাতীয় পরিচয়পত্রের মূল কপি জমা দিতে হবে। পদ অনুসারে লিখিত পরীক্ষার জন্য আলাদা আলাদা প্রশ্ন করা হবে। এইচএসসি যোগ্যতা চাওয়া পদগুলোর পরীক্ষায় অষ্টম থেকে এসএসসি লেভেলের বাংলা, অঙ্ক ও ইংরেজি বিষয়ে প্রশ্ন করা হতে পারে। এসএসসি পাস চাওয়া পদগুলোর জন্য ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির বাংলা, অঙ্ক ও ইংরেজি বিষয়ে প্রশ্ন আসতে পারে। অষ্টম ও পঞ্চম শ্রেণি পাস চাওয়া পদগুলোর জন্য প্রাথমিক বাংলা, অঙ্ক ও ইংরেজি বিষয়ে প্রশ্ন হতে পারে। অক্ষরজ্ঞান যোগ্যতা চাওয়া পদগুলোতে দেখা হবে শারীরিক যোগ্যতা ও কাজ করার ক্ষমতা।

-ফরহাদ হোসেন


মন্তব্য