kalerkantho


এবার পরুন দেশি লন

লনের পোশাক মানেই ছিল ভারতীয় কিংবা পাকিস্তানি। কিন্তু এই প্রথম দেশেই লনের কাপড় তৈরি ও বাজারজাত করছে রাসবেরি লন নামের প্রতিষ্ঠান। এ দেশে লনের কাপড় ও পোশাক তৈরির গল্প জানালেন পিন্টু রঞ্জন অর্ক

১৭ জুলাই, ২০১৭ ০০:০০




এবার পরুন দেশি লন

মডেল : রিসিলা ,পোশাক : রাসবেরি লন, ছবি : কাকলী প্রধান

লনকে নতুন করে পরিচয় করিয়ে দেওয়ার কিছু নেই। শতভাগ সুতি কাপড়। পরতে খুব আরাম। নকশাও সুন্দর। কাপড়ের গুণগত মান, ডিজাইন আর ফ্যাশন-বৈচিত্র্যে লন এখন মেয়েদের পছন্দের শীর্ষে। কিন্তু এত দিন কারিজমা, আলকারাম, সানা সাফিনাজ, সানা সামিয়া, অসীম জোফা, গুল আহমেদসহ নানা নামে দেশের বাজারে একচ্ছত্র আধিপত্য ছিল পাকিস্তানি ও ভারতীয় লনের।

এসব দেখে বছর কয়েক আগে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন খ্যাতনামা ফ্যাশন ডিজাইনার বিবি রাসেল। তিনি লিখেছিলেন ‘পাকিস্তানি ‘লন ড্রেস’ ভরা বাজারে আমাদের তাঁতবস্ত্র কোথায়?’

 

খবরটা শুনলে বিবি রাসেল নিশ্চয়ই খুশি হবেন, তা হলো—এখন দেশেই তৈরি হচ্ছে আন্তর্জাতিক মানের লনের পোশাক।

এবারই প্রথম রাসবেরি লন নামে একটি প্রতিষ্ঠান দেশে লনের কাপড় তৈরি করে পোশাক বা নিয়ে বাজারজাত করছে। উন্নতমানের কাপড়ে তৈরি পোশাক কম দামে সাধারণের কাছে পৌঁছে দেওয়ার উদ্দেশ্যে এ বছরের জানুয়ারিতে এর যাত্রা শুরু।   যদিও ২০১৪ সালের জুন থেকে অন্যান্য পোশাকের পাশাপাশি লনের সালোয়ার-কামিজ বাজারে আনতে শুরু করেছে ফ্যাশন ব্র্যান্ড ইয়েলো। কিন্তু দামটা বেশি হওয়ায় সবার কাছে জনপ্রিয়তা পায়নি। এছাড়া শুধুই সালোয়ার কামিজ পাওয়া যেত। কিন্তু রাসবেরিতে লনে  স্টিচ ও আনস্টিচ সালোয়ার-কামিজের পাশাপাশি পাওয়া যাচ্ছে  সিঙ্গেল কুর্তি, থ্রি পিস, ওড়না, পালাজ্জোসহ নানা পোশাক। আর দামটাও সাশ্রয়ী।

 

প্রতিষ্ঠানটির কর্ণধার হাসান রহমান জানালেন, ‘অত্যাধুনিক প্রিন্ট টেকনোলজি ও রপ্তানিযোগ্য দেশীয় কাপড় রাসবেরি লনের বিশেষত্ব। আনস্টিচ হিসেবেও কিনতে পারবেন। নতুনত্ব আনতে আমাদের ডিজাইন স্টুডিওতে প্রতিনিয়ত পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলছে। ’

হাসান রহমান আরো জানান, ‘শুরুতে দেশে লনের বাজার নিয়ে একটা গবেষণা করেছি আমরা। দেখা গেছে, দেশে লনের বাজারের একটা বড় অংশ পাকিস্তানের দখলে। আবার দেশীয় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানও ডিজাইন কপি করে পাকিস্তানি লন নামে বিক্রি করছে। আরেকটা বিষয় হলো, পাকিস্তানের আবহাওয়ার সঙ্গেও আমাদের আবহাওয়ার ব্যাপক তফাত আছে। গরম বেশি বলে তারা ফিনফিনে পাতলা লন তৈরি করে। ঘেমে গেলে যেটা গায়ের সঙ্গে লেপ্টে যায়। এসব কিছু বিবেচনায় রেখেই রাসবেরি লন বাজারে এনেছি। ’

 

 

প্রতিষ্ঠানটির ডিজাইন কলসালট্যান্ট সায়মা তেরেসা বললেন, ‘আন্তর্জাতিক বাজারের ট্রেন্ড, রং অনুসরণ করে দেশীয় সংস্কৃতির ভাবধারায় দেশি মোটিফে করা হয় রাসবেরি লনের ডিজাইন। ’

 

ডিজাইনার মহিমা বেগম বলেন, ‘লনের পোশাকে মূল কাজ হলো প্রিন্টের। পাখি, শখের হাঁড়িসহ আমাদের বিভিন্ন লোকজ মোটিফ, ছোট-বড় ফুল, লতা-পাতার ডিজাইন প্রিন্টের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলা হয় পোশাকের ক্যানভাসে। ফ্লোরাল মোটিফের পোশাকই বেশি। এ ছাড়া আছে চেক, জ্যামিতিক মোটিফের পোশাক। ফুল-পাতার সঙ্গে কামিজ কিংবা কুর্তির বর্ডারে জিওমেট্রিক মোটিফে প্লেসমেন্ট প্রিন্ট ব্যবহার করা হয়। এই প্রিন্টই লনকে থান কাপড়ের চেয়ে আলাদা করে তোলে। ’ সায়মা তেরেসা আরো বলেন, ‘পোশাকের রং হিসেবে হালকা রংগুলোকেই বেছে নেওয়া হয়েছে। হালকা হলুদ, হালকা সবুজ, আকাশি নীল, ম্যাজেন্টা, কমলা ইত্যাদি রংই বেশি প্রাধান্য পেয়েছে। পাশাপাশি আছে সাদা, লাল, কালো, নীল, গাঢ় সবুজের মতো রংগুলো। একরঙা পোশাকের পাশাপাশি কয়েকটি রঙের সমন্বয়ে করা পোশাকও মিলবে। ’ বিশ্ব রঙ এবং তারা ফ্যাশন হাউসের শোরুমে  গিয়ে দেখা গেল রাসবেরি লনের পপআপ রঙের কুর্তি যেমন আছে, তেমনি আছে বড় ফুলের জ্যামিতিক বর্ডারে কুর্তি। বেইজ রঙের লন কামিজের ঝুলে জ্যামিতিক নকশা ব্যবহার করা হয়েছে। আছে জ্যামিতিক, ফ্লোরাল ও চেকড লন কামিজ ও ওড়না। আবার ম্যাজেন্টা আর কালোর মিশেলে তৈরি লন কামিজে ফুলেল ঝাড়। সঙ্গে আছে অলওভার প্রিন্টেড শিফন ওড়না। পজেটিভ-নেগেটিভ ফুলেল নকশায় লনের ট্রেন্ডি কুর্তি যেমন পাবেন, তেমনি ন্যাচারাল রঙে প্লেসমেন্ট ফুলেল নকশায় লনও মিলবে। স্লিভসহ ও স্লিভলেস দুই রকমই পাবেন। বেশির ভাগ কামিজ কিংবা কুর্তিতে এ লাইন প্যাটার্ন ব্যবহার করা হয়েছে। এ ধরনের পোশাকের বডিতে কাজ কম। কিছু কামিজ আছে, যেগুলোর সাইড ওপেন। কিছু আছে একেবারেই স্ট্রেট কাট। কিছু কামিজের দুই পাশে কোনায় ঝুল একটু বেশি রাখা হয়েছে। ফ্রন্টওপেন কটি স্টাইলের কিছু কুর্তি আছে, যেগুলো টি-শার্ট বা অন্য কোনো পোশাকের সঙ্গে পরা যাবে। বাটনসহ এবং বাটন ছাড়া দুই রকম পোশাকই আছে। বাটনগুলো বেশির ভাগই কাপড়ের, পোশাকের রঙের সঙ্গে মিলিয়ে করা। রাসবেরি লনের পোশাকের দাম হাতের নাগালে। আনষ্টিচ থ্রিপিসের দাম ১৬৫০ আর কুর্তির দাম ৯৯০ টাকা।   কিনতে পারেন অনলাইনেও  এই ঠিকানায় : www.raspberrylimited.com ।   যোগাযোগ : বাড়ি : ১১১২, রোড় : ১০, এভিনিউ: ০৮, মিরপুর ডিওএইচএস, ঢাকা।   এছাড়া ফ্যাশন হাউস বিশ্ব রঙের সানরাইজ প্লাজা এবং যমুনা ফিউচার পার্কের শোরুমে এবং তারা ফ্যাশন হাউসের বনানী ও উত্তরা শোরুম থেকে রাসবেরি লনের পোশাক কিনতে পারবেন।

 


মন্তব্য