kalerkantho


চাঁপাইনবাবগঞ্জের তিন আসন

লড়তে চান বর্তমান ও সাবেক পাঁচ উপজেলা চেয়ারম্যান

ইমতিয়ার ফেরদৌস সুইট, চাঁপাইনবাবগঞ্জ   

১২ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০



সংসদ নির্বাচনের প্রাক্কালে চাঁপাইনবাবগঞ্জের তিন আসনেই বর্তমান সংসদ সদস্যদের প্রতি চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছেন বর্তমান ও সাবেক পাঁচ উপজেলা চেয়ারম্যান। এর মধ্যে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন চাইছেন তিনজন আর বিএনপি ও জামায়াত থেকে রয়েছেন একজন করে। পাঁচ সম্ভাব্য মনোনয়নপ্রত্যাশী হলেন—রুহুল আমিন, আব্দুল কাদের, বাইরুল ইসলাম, কেরামত আলী ও খুরশেদ আলম বাচ্চু। দলের নেতাকর্মী ছাড়াও সাধারণ মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন তাঁরা।

সদর উপজেলার ১৪ ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভা নিয়ে গঠিত চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসন। নব্বইয়ের পটপরিবর্তনের পর আসনটি দীর্ঘদিন ছিল বিএনপি ও জামায়াতের দখলে। ২০০৮ সালের নির্বাচনে বিএনপির হেভিওয়েট প্রার্থী হারুনুর রশিদকে বিপুল ভোটে হারিয়ে চমক দেখান আওয়ামী লীগের প্রার্থী আব্দুল ওদুদ। সর্বশেষ দশম সংসদ নির্বাচনে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওদুদ বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আবারও এমপি নির্বাচিত হন। এবার এই আসনে সদর উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি রুহুল আমিনও দলের মনোনয়ন চাইছেন। 

রুহুল আমিন কালের কণ্ঠকে বলেন, দুইবার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান থাকার কারণে সদর উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়ন ও পৌরসভায় সাধারণ মানুষের মাঝে তাঁর গ্রহণযোগ্যতা আছে। ‘দলের সভানেত্রী বলেছেন, স্বচ্ছ ও গ্রহণযোগ্য নেতাদের একাদশ সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী করা হবে। এ জন্য আগামী সংসদ নির্বাচনে আমি মনোনয়ন পাব বলে আশা করছি।’

গোমস্তাপুর, নাচোল ও ভোলাহাট উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন ও দুটি পৌরসভা নিয়ে গঠিত চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনে দশম সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী গোলাম মোস্তফা বিশ্বাস ৯৩ হাজার ৫০৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান খুরশেদ আলম বাচ্চু পান ২৭ হাজার ৮৯৩ ভোট। আসন্ন নির্বাচনে গোলাম মোস্তফা বিশ্বাসকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছেন খুরশেদ আলমের পাশাপাশি আরো একজন—আব্দুল কাদের। তিনি নাচোল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও বতর্মান উপজেলা চেয়ারম্যান। আব্দুল কাদের এই প্রতিনিধিকে বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে এলাকার উন্নয়ন ও দলের জন্য কাজ করছি। সাধারণ মানুষের ভালোবাসা পেয়েছি। তাই এবার সংসদ সদস্য হিসেবে দলের মনোনয়ন চাইছি।’ জেলা কৃষক লীগের সহসভাপতি খুরশেদ আলম বাচ্চু কলের কণ্ঠকে জানান, বর্তমান সংসদ সদস্য গোলাম মোস্তফা বিশ্বাসকে হারিয়েই ২০০৯ সালে তিনি উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছিলেন। এলাকায় তাঁর পরিবারের রাজনৈতিক ঐতিহ্য রয়েছে দাবি করে তিনি বলেন, তাঁকে মনোনয়ন দেওয়া হলে আওয়ামী লীগের ভোটের সঙ্গে তাঁর ব্যক্তিগত ভোটও যোগ হবে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসন থেকে বিএনপির মনোনয়ন চাইছেন গোমস্তাপুর উপজেলা পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির সভাপতি বাইরুল ইসলাম।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ (শিবগঞ্জ) আসনে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলের মনোনয়ন চাইছে জামায়াত। দলটি শিবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কেরামত আলীকে দলীয় প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা দিয়েছে।



মন্তব্য