kalerkantho


ঢেমুশিয়া যুবলীগের সভায় হামলার ঘটনায় মামলা

চকরিয়া প্রতিনিধি   

১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



উপজেলার ঢেমুশিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সভায় সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। ওই ঘটনায় আহত রবিউলের মামাতো ভাই মো. মোস্তাফিজুর রহমান বাদী হয়ে গতকাল শনিবার সাত জনের নাম উল্লেখ করে এবং ১২ জনকে অজ্ঞাত আসামি করে মামলাটি করেন।

শুক্রবার বিকেলে ঢেমুশিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সামনে হেতালিয়া পাড়া রাস্তার মাথায় হামলার ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, সমপ্রতি টমটম চালকদের মধ্যে অপ্রীতিকর একটি ঘটনা ঘটলে মিনার উদ্দিন নামের এক ব্যক্তি বিষয়টি উভয়পক্ষকে নিয়ে মীমাংসা করে দেন। এ নিয়ে মিনারের ওপর ক্ষিপ্ত হন স্থানীয় সেলিম ও আজু। এর জের ধরে গত বুধবার মিনারের সঙ্গে ঝগড়া-বিবাদে জড়ান তাঁরা। ঝগড়ার বিষয়ে শুক্রবার ঢেমুশিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে বৈঠক হয় উভয়পক্ষের। কিন্তু অভিযুক্ত সেলিম ওই বৈঠকের সিদ্ধান্ত মানবেন না জানিয়ে উচ্ছৃঙ্খল আচরণ করেন। এরই অংশ হিসেবে শুক্রবার ঢেমুশিয়া ইউনিয়নের তিন নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগের বর্ধিত সভায় মিনারকে দেকে সেখানে সন্ত্রাসী হামলা হয়। এতে পণ্ড হয়ে যায় বর্ধিত সভা।

মামলার বাদী বলেন, ‘মূলত ঢেমুশিয়া ইউনিয়ন বিএনপি নেতা ও ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান নুরুল আলম জিকুর ইন্ধনেই সন্ত্রাসীরা সংঘবদ্ধ হয়ে যুবলীগের সভায় হামলা চালায়।

তবে বিএনপি নেতা ও ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আলম জিকু বলেন, ‘এই হামলার ঘটনায় আমার কোনো হাত ছিল না। ঘটনার দিন আমি চট্টগ্রামে ছিলাম। ’

চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. কামরুল আজম বলেন, ‘হামলার ঘটনার খবর পেয়ে তাত্ক্ষণিক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই। ’


মন্তব্য