kalerkantho


প্রতিমা তৈরিতে ব্যয় বেড়েছে দ্বিগুণ

তোফায়েল আহমদ, কক্সবাজার   

২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



দুর্গোৎসবে প্রতিমা তৈরির খরচ বেড়ে গেছে। গত কয়েক বছরের তুলনায় এবার খরচ বেড়েছে প্রায় দ্বিগুণ। তবু প্রতিমা তৈরি থেকে শুরু করে পূজামণ্ডপ সাজানোর কাজে কোনো কমতি নেই। তবে পূজা পরিষদ নেতারা মণ্ডপপ্রতি সরকারি বরাদ্দ বাড়ানোর দাবি জানিয়েছেন। এদিকে কক্সবাজারে পূজামণ্ডপের সংখ্যা বেড়েছে ১০টি। গেল বছর ছিল ২৭৬টি।

দুর্গোৎসব সামনে রেখে কক্সবাজারে পুরোদমে চলছে প্রতিমা তৈরির কাজ। শহরের ঐতিহ্যবাহী সরস্বতীবাড়ির প্রবীণ মৃিশল্পী নেপাল ভট্টাচার্য বলেন, ‘এবার দুই মাস আগে থেকে প্রতিমা তৈরির কাজ শুরু করেছি। ইতোমধ্যে ২৫টি প্রতিমা সেট তৈরির কাজ পেয়েছি। যে প্রতিমা তৈরি করতে খরচ হয় ৪০ হাজার টাকা, এর বিপরীতে পাওয়া যায় ৪৫ থেকে ৫০ হাজার টাকা। যা শ্রম আর সময়ে পোষায় না। ’ তিনি জানান, পাঁচ বছর আগে যে প্রতিমা তৈরিতে খরচ হতো ২০ হাজার টাকা আর এখন হচ্ছে প্রায় ৪০ হাজার টাকা। আগে খরচ কম হতো, লাভ হতো বেশি। এখন খরচ বেশি, লাভ কম।

শহরের ঘোনারপাড়া দুর্গাপূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি স্বপন পাল জানান, আগে মৃিশল্পীরা প্রতিমা তৈরি করতে খরচ নিতেন এক থেকে দেড় লাখ টাকা। গত বছর থেকে দুই/তিন লাখ টাকা নিচ্ছেন শিল্পীরা। আর এবার প্রতিমা সেট তৈরির জন্য নিচ্ছেন আড়াই থেকে সাড়ে চার লাখ টাকা। ফলে এবার সবকিছু মিলে একেকটি মণ্ডপে ৮ থেকে ১২ লাখ টাকা খরচ হতে পারে।  

এবার পূজা উদ্যাপনে খরচ বেড়েছে বলে জানান কক্সবাজার জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি অ্যাডভোকেট রঞ্জিত দাশ। কালের কণ্ঠকে তিনি বলেন, ‘সব কিছুতেই খরচ বেড়েছে দ্বিগুণ। তাই বরাদ্দও বাড়ানো প্রয়োজন। এ ব্যাপারে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। ’

তিনি জানান, আগামীকাল শুক্রবার কেন্দ্রীয় পূজা কমিটির প্রস্তুতি সভা এবং ২৬ সেপ্টেম্বর জেলা প্রশাসকের আয়োজনে প্রস্তুতি সভা হবে।

জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক বাবুল শর্মা জানান, গতবার কক্সবাজার জেলায় মোট ২৭৬ মণ্ডপে দুর্গাপূজা হয়েছে। এবার ১০টি বেড়েছে। এর মধ্যে ১৩২টিতে প্রতিমা ও ১৫৪টিতে ঘটপূজা হবে।


মন্তব্য