kalerkantho


লেবার পার্টির সাত ব্রিটিশ এমপির পদত্যাগ

জুয়েল রাজ, লন্ডন থেকে   

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৮:১৩



লেবার পার্টির সাত ব্রিটিশ এমপির পদত্যাগ

ব্রেক্সিট এবং এন্টিসেমিটিজম ইস্যুতে দলীয় নেতা জেরেমি করবিনের উপর ক্ষুব্ধ হয়ে লেবার পার্টি থেকে পদত্যাগ করেছেন ৭ সংসদ সদস্য, তাঁরা হলেন, এমপি চুকা উমনা, লুসিয়ানা বার্গার, ক্রিস লেসলি, এন্জেলা স্মীথ, মাইক গ্যাপস, গেভিন শুকার এবং এন কফি।

ব্রেক্সিট ইস্যুতে জেরেমি করবিনের ভুমিকা নিয়ে ক্ষোভ আছে তাঁদের। নতুন করে আরো একটি রেফারেন্ডামের দাবীতে পিপলস ভোট ক্যাম্পেইনে দলীয় লিডারের ভুমিকা যথেষ্ট ইতিবাচক নয় বলে তারা মনে করেন। অন্যদিকে লেবার লিডারের ব্যর্থতার ফলে লেবার পার্টি প্রাতিষ্ঠানিকভাবে এন্টি সেমিটিজমে পরিনত হয়েছে বলেও মনে করেন তাঁরা। এই দুই কারণে ক্ষোভ প্রকাশ করে দল ছেড়েছেন  বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশ পেয়েছে। 

এই সাত এমপি এখন থেকে স্বতন্ত্র গ্রুপ হিসেবে পার্লামেন্টে নিজ নিজ এলাকার প্রতিনিধিত্ব করবেন। এই দলে লেবারের আরো বেশ কয়েকজন এমপি যোগ দিতে পারেন। ব্রেক্সিট নিয়ে চুড়ান্ত সিদ্ধান্তের পূর্ব মুহুর্তে এই সাত এমপির পদত্যাগ লেবার পার্টির জন্য একটি বিশাল ধাক্কা হিসাবেই দেখছেন বিশেষজ্ঞরা।  

এতে অনেক লেবার দলে ভাঙনের সুর দেখছেন। তবে করবিন একে হতাশাজনক উল্লেখ করে বলেছেন, এসব এমপি ২০১৭ সালের নির্বাচনে মিলিয়ন মানুষের সমর্থন পাওয়া লেবার দলের নীতির সাথে কাজ করতে অনীহা প্রকাশ করেছেন।

পদত্যাগের পর লুসিয়ানা বারগার দাবী করেন লেবার দল প্রাতিষ্ঠানিকভাবে ইহুদীবিদ্বষী হয়ে পড়েছে এবং এই দলের সাথে থাকা বিব্রতকর ও লজ্জাজনক। পদত্যাগী আরেক এমপি ক্রিস লেইসলি দাবী করেছেন, লেবার দল চরম বামপন্থী দ্বারা অপহৃত হয়েছে।

৬০ বছর বয়সী এম পি মাইক গেইপ, তাঁর টুইটে লিখেন করবিন, হামাস, হিজবুল্লাহ, আসাদ এবং ইরানের সাথে শর্তহীন ভাবে বসতে রাজী আছেন, কিন্তু ইউকে প্রধানমন্ত্রীর সাথে নয় কেন?

আরেক  এম পি লিসা পাওয়াল,  সাত এম পির পদত্যাগের ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে লিখেছেন, আমার কিছু সহকর্মীর পদত্যাগের খবরে আমি মর্মাহত, এতে করে আমাদের একতা দুর্বল হবে। আমাদের ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করার সময় এখন।  সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া বিদ্যমান আছে। বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত তিন এম পির কেউই  যদিও এ ব্যাপারে এখনো কোন মন্তব্য করেননি।



মন্তব্য