kalerkantho


‘হিটলারের মতো ভয় দেখিয়েই কাজ হাসিল করেন ট্রাম্প’

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ১৬:৩৩



‘হিটলারের মতো ভয় দেখিয়েই কাজ হাসিল করেন ট্রাম্প’

যুক্তরাষ্ট্রের মেরিল্যান্ডের বাল্টিমোরে হিপোড্রোম থিয়েটারে ইহুদি গীতিনাট্যের একটি অনুষ্ঠান চলছিল। আর সেখানেই ‘হাইল হিটলার! হাইল ট্রাম্প!’ বলে চিৎকার করে ওঠেন অ্যান্থনি ডার্নুলাস নামের এক ব্যক্তি।

তবে মার্কিন একটি টিভি চ্যানেলকে দেয়া সাক্ষাৎকারে অ্যান্থনি ডার্নুলাস দাবি তিনি আসলে ইহুদি-বিদ্বেষী নন বরং ঘোরতর ট্রাম্প বিরোধী।

বুধবার মেরিল্যান্ডের বাল্টিমোরে হিপোড্রোম থিয়েটারে এ ঘটনা ঘটেছে। এরপর হৈ চৈ শুরু হয়ে গেলে ৫৮ বছর বয়সী ডার্নুলাসকে থিয়েটার থেকে সরিয়ে নেয়া হয়। অবশ্য মার্কিন ডব্লিউবিএএল-টিভিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ওই ঘটনার জন্য ক্ষমা চেয়েছেন ডার্নুলাস।
 
ভয়ের কারণে ক্যামেরা থেকে নিজের মুখ লুকিয়ে ক্রন্দনরত অবস্থায় ডার্নুলাস বলেন, আমি খুবই বিব্রত এবং লজ্জিত এবং নিজেকে ঘৃণা হচ্ছে।

ডার্নুলাস বলেন, ওই অনুষ্ঠানের সময় প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রতি তার হতাশা টগবগিয়ে উঠলে তিনি এমন ঘটনা ঘটিয়েছেন। অনেকেই তার এমন কাজকে ইহুদি বিরোধী বললেও তিনি জোর দিয়েই বলেছেন যে, তিনি ট্রাম্প বিরোধী।

টিভি চ্যানেলকে ডার্নুলাস বলেন, আমি ট্রাম্পকে অ্যাডলফ হিটলারের সঙ্গে তুলনা করার চেষ্টা করেছি কারণ সে সাধারণ মানুষকে ভয় দেখিয়ে কাজ হাসিল করার চেষ্টা করেন। স্বেরাচারী শাসকেরা ঠিক যেমন করতো।

তিনি বলেন, ওই মুহূর্তে এটা আমার হতাশার বহিঃপ্রকাশ ছিল। আমি কী ভাবছিলাম আমি জানি না।

তবে ডার্নুলাসের ওই কাণ্ডের পর হিপোড্রোম থিয়েটারে দৌড়াদৌড়ি শুরু হয়ে যায় এবং সে বন্দুক হামলা চালাতে পারে এমন ভয়ে মানুষজন চিৎকার করতে থাকে।

সেদিনের সন্ধ্যায় অযথা আতঙ্ক সৃষ্টি করার জন্য তিনি ‘খুবই লজ্জিত’ বলে জানিয়েছেন অ্যান্থনি। তিনি বলেন, ‘সেদিন আমার জন্য যাদের ওই সুন্দর সন্ধ্যাটা নষ্ট হয়ে গেল, তাদের সবার কাছে আমি খুবই লজ্জিত। আমার বোকামির জন্য আমি ক্ষমাপ্রার্থী।’

অ্যান্থনি অবশ্য স্বীকার করে নিয়েছেন যে, সেদিন নাটক শুরুর আগে অনেকটা মদ্যপান করেছিলেন তিনি। তাতেই হয়তো বেশি আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন বলেও তার মন্তব্য।

এদিকে ওই ঘটনার পর পুলিশ অ্যান্থনিকে গ্রেপ্তার করেনি। বরং ভবিষ্যতে সংযত থাকতে সতর্ক করে দিয়ে তাকে ছেড়ে দেয়। যদিও বল্টিমোর থিয়েটার কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা আর কখনও অ্যান্থনিকে তাদের থিয়েটারে ঢুকতে দেবে না।

উল্লেখ্য, এক মাসেরও কম সময় আগে পিটসবার্গের একটি সিনাগগে বন্দুক হামলায় ১১ জন ইহুদি ধর্মাবলম্বী নিহত হয়েছিলেন।



মন্তব্য