kalerkantho


২৩ হাজার মরদেহের ময়নাতদন্ত করেছেন তিনি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৮:২৮



২৩ হাজার মরদেহের ময়নাতদন্ত করেছেন তিনি

ফরেনসিক প্যাথলজিস্ট ডা. রিচার্ড শেফার্ড আলোচিত কিছু দুর্ঘটনায় সম্প্রতি প্রাণ হারানো ব্যক্তিদের মরদেহের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন করেছেন। যুক্তরাষ্ট্রের টুইন টাওয়ারে হামলার ঘটনায় নিহতদের মরদেহের ময়নাতদন্তও করেছেন তিনি।

এছাড়া ২০০৫ সালে লন্ডন হামলায় নিহতদের মরদেহ, ১৯৯৩ সালে খুন হওয়া স্টিফেন লরেন্স, এমনকি প্রিন্সেস ডায়ানার মরদেহ তিনিই ময়নাতদন্ত করে দেখেছেন। গত ৩৫ বছরে ২৩ হাজারেরও বেশি মরদেহের ময়নাতদন্ত তিনি করেছেন বলে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

অবশ্য এতো বেশি মানুষের মরদেহের ময়নাতদন্ত করতে গিয়ে তার মানসিক সমস্যাও দেকা দিয়েছে। শেফার্ড এ ব্যাপারে বলেন, এক জায়গায় দুইশ টুকরো, ক্ষতবিক্ষত প্রাণহীন মরদেহ আমার মনে ছাপ রেখে যায়। সারাক্ষণ মৃত্যুর সঙ্গে চলাচল। আমার দৈনন্দিন জীবন থেকে এসব আলাদা করতে পারি না অনেক সময়।

সন্ত্রাসী হামলায় নিহত বহুজনের মরদেহ ময়নাতদন্ত করেছেন তিনি। দীর্ঘদিন ধরে ময়নাতদন্ত করার কারণে পোস্ট ট্রমাটিক স্ট্রেস ডিজঅর্ডারে ভুগতে হয়েছে তাকে।

নিজের লেখা এক বইয়ে ডা. শেফার্ড লিখেছেন, একসময় চোখ বন্ধ করতেও অস্বস্তি বোধ করতাম। চোখ বন্ধ করলে রক্তাক্ত অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ আমার চিন্তা গ্রাস করে ফেলে।

পরিপাকতন্ত্র, স্যাঁতস্যাঁতে যকৃত, স্পন্দনহীন হৃদপিণ্ড, ছিন্ন হাত, দম আটকানো রক্তের গন্ধ প্রতিনিয়ত আমার শ্বাসপ্রশ্বাসে বাধা দিতো। মাঝেমধ্যে আমার মনে হতো এভাবে বেঁচে থাকার চেয়ে মনে হয় মৃত্যুই ভালো বলেও সেখানে উল্লেখ করেন তিনি।



মন্তব্য