kalerkantho


ইসরায়েলের নাগরিকত্ব আইনের তীব্র প্রতিবাদ আরব দেশগুলোর

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ জুলাই, ২০১৮ ১৩:৪২



ইসরায়েলের নাগরিকত্ব আইনের তীব্র প্রতিবাদ আরব দেশগুলোর

ইসরায়েলের ট্যাংক (ফাইল ফটো)

ইহুদিদের আরো গুরুত্ব দিয়ে নতুন নাগরিকত্ব আইন করেছে ইসরায়েল। এ আইনে ইহুদিবাদী দেশটিতে ফিলিস্তিনি ও আরবদের নাগরিকত্ব পাওয়া আরো কঠিন হয়ে উঠবে। ফলে আইনটির প্রতিবাদে সরব হয়েছে বিভিন্ন আরব দেশ।

নতুন এ আইনকে ‘বর্ণবাদী’ আখ্যা দিয়ে এর বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছে মিসর। মধ্যপ্রাচ্যের শান্তি প্রক্রিয়াকে বিঘ্নিত করবে বলে জানিয়েছে মিসর।

মিসরের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে এ আইনের বিরুদ্ধে লিখেছে, ‘এ আইন দখলদারিত্ব ও বর্ণবাদী আচরণকে একত্রিত করবে। এটি এ অঞ্চলের শান্তির সম্ভাবনাকেও জটিল করে তুলবে এবং ফিলিস্তিনি সংকট নিষ্পন্ন করাকে আরো কঠিন পর্যায়ে নিয়ে যাবে।’

সৌদি আরবও ইসরায়েলের এ আইন প্রত্যাখ্যান করেছে।

সৌদি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক সূত্র শুক্রবার জানিয়েছে, সৌদি রাজতন্ত্রের পক্ষ থেকে ইসরায়েলের নতুন এ আইনকে প্রত্যাখ্যান করা হয়েছে। এটি আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন বলেও জানিয়েছে তারা।

আন্তর্জাতিক মহলকে ফিলিস্তিনিদের অধিকার ক্ষুণ্ণকারী এ আইনের বিরুদ্ধে দাঁড়াতে হবে বলেও জানিয়েছে সেই সূত্র।

সৌদি আরবের সূত্র জানিয়েছে, আরব-ইসরায়েলি সংঘাত থামানোর উদ্যোগে বাধাস্বরূপ কাজ করবে এই আইন।

বৃহস্পতিবার ইসরায়েলি পার্লামেন্টে ৬২-৫৫ ভোটে আইনটি পাস করা হয়েছে।

ইসরায়েলের নতুন নাগরিকত্ব আইনে ইহুদিদের ইসরায়েলের নাগরিক হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে। এছাড়া হিব্রু ভাষাকে একমাত্র দাপ্তরিক ভাষা হিসেবে তুলে ধরা হয়েছে।

এ আইনের বিরোধীতা করেছে ছয় জাতির উপসাগরীয় সহযোগিতা সংস্থা। সৌদি আরব, বাহরাইন, কুয়েত, ওমান, কাতার ও আরব আমিরাত এ সংস্থার সদস্য।

এছাড়া জর্ডান, তুরস্ক ও আরব লীগ ইসরায়েলের নতুন এ নাগরিকত্ব আইনের বিরোধীতা করেছে।

সূত্র : ইসরায়েল ন্যাশনাল নিউজ



মন্তব্য