kalerkantho


ভারতে গোরক্ষার নামে আবারো পিটিয়ে হত্যা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ জুলাই, ২০১৮ ১৩:৫৫



ভারতে গোরক্ষার নামে আবারো পিটিয়ে হত্যা

হত্যাকাণ্ডের পর পুলিশি অভিযান : এনডিটিভি

ভারতে গরু চোরাচালানি সন্দেহে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করেছে স্থানীয় গ্রামবাসী। নিহত ওই ব্যক্তির নাম আকবর খান (২৮) বলে জানিয়েছে পুলিশ। গতকাল শুক্রবার রাতে রাজস্থানের আলওয়ার জেলায় এ ঘটনা ঘটে।

২০১৭ সালের ৫ এপ্রিল এই আলওয়ারেই শ'দুয়েক স্বঘোষিত গোরক্ষক পেহলু খান সহ সাতজনকে বেধড়ক মারধর করে। বাকি ছ'জন প্রাণে বাঁচলেও, মৃত্যু হয় পেহলু খানের। সেই ঘটনার পর ভারতজুড়ে তোলপাড় হয়। ভারতের সংসদেও এ নিয়ে আলোচনা হয়। স্বঘোষিত এই গোরক্ষকদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হন বিরোধীরা। সাধারণ মানুষের মধ্যেও তীব্র প্রতিক্রিয়া হয়। কিন্তু তারপরও গোরক্ষার নামে গণপিটুনিতে মৃত্যু আটকানো যায়নি। গত দু'বছরে এ ধরনের ঘটনায় অন্তত ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মাত্র চার দিন আগে এ নিয়ে তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ করে, গণপিটুনি রুখতে নতুন আইন আনার পরামর্শ দেয় ভারতের সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু সংসদে রাজনাথ সিং জানিয়ে দেন, এই মুহূর্তে এ নিয়ে নতুন আইন আনার প্রয়োজন নেই। তবে গুজব বা গোরক্ষার নামে গণপিটুনি ঠেকাতে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে আশ্বাস দেন তিনি। কিন্তু কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ওই আশ্বাস যে শুধু কথার কথা তা এক সপ্তাহের মধ্যেই বুঝিয়ে দিল শুক্রবার রাতের এই হত্যাকাণ্ড।

জানা গেছে, গরু নিয়ে হেঁটে যাওয়ার সময় রামগড় গ্রামের লোকজন দুজনকে আটক করে। এরপর ওই দুজনকে নির্মমভাবে পিটানো হয়। এতে ঘটনাস্থলেই একজনের মৃত্যু হয়। এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

এ বিষয়ে রামগড় পুলিশ স্টেশনের কর্মকর্তা সুভাষ শর্মা জানান, আকবর খান হরিয়ানার কোলগাঁও গ্রামের বাসিন্দা। তিনি আরেকজনকে সঙ্গে নিয়ে জঙ্গলের ভেতর দিয়ে দুটি গরু নিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় একদল লোক আকবরকে পিটিয়ে হত্যা করে।

এদিকে সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা অনিল বেনিওয়াল জানান, ওই ব্যক্তিরা গরু চোরাচালানি কি না তা স্পষ্ট নয়। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি। 

সূত্র: এনডিটিভি ও আনন্দবাজার

 



মন্তব্য