kalerkantho


'সমাজ সংস্কার' করতে গিয়ে 'মানহানি'র মামলায় ফাঁসছেন কোহলি-আনুশকা!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৪ জুন, ২০১৮ ১৭:১৪



'সমাজ সংস্কার' করতে গিয়ে 'মানহানি'র মামলায় ফাঁসছেন কোহলি-আনুশকা!

ছবি : টুইটার

দুই ভুবনের দুই মহাতারকার এখন সুখের সংসার চলছে। সোশ্যাল সাইটে দুজনেই মাঝমধ্যে সমাজ সংস্কারমূলক বিভিন্ন বিষয়ে পোস্ট দেন। তবে এবার বেশ ঝামেলাতেই ফেঁসে গেলেন বিরাট কোহলি এবং আনুশকা শর্মা। গাড়ি থেকে রাস্তায় প্লাস্টিক ফেলেছিলেন আরহান নামের এক ব্যাক্তি। আর তা দেখে রাগ সামলাতে না পেরে নিজের গাড়ি থামিয়ে ওই ব্যক্তিকে পরিচ্ছন্নতার পাঠ দেন আনুশকা শর্মা।

ঘটনা এখানেই শেষ নয়; আনুশকার সেই বক্তব্যের ভিডিও সোশ্যাল সাইটে শেয়ার করে কোহালি লিখেন, 'দেখুন, এরা রাস্তায় নোংরা ফেলছে! ব্র্যান্ডেড গাড়িতে চলাফেরা করছেন, অথচ বুদ্ধি রয়েছে হাঁটুতে। এরা আমাদের দেশকে পরিষ্কার রাখবে? আপনিও যদি এমন কিছু দেখেন, তা হলে একই ভাবে প্রতিবাদ করুন, সচেতনতা ছড়িয়ে দিন।'

বিষয়টি নিয়ে সোশ্যাল সাইটে মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়। অন্যদিকে সেই গাড়ির চালক আরহাম ছাড়ার পাত্র নন। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ধরনের পোস্ট দিয়ে 'সম্মানহানি' করা হয়েছে, এমন অভিযোগ এনে 'বিরুষ্কা'কে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন তিনি! গণমাধ্যমকে তিনি বলেছেন, 'আমার পক্ষ থেকে আইনি উপদেষ্টারা তাদের নোটিশ পাঠিয়েছে। বল এবার তাঁদের কোর্টে।'

বিরাট কোহালি ওইদিন ভিডিও পোস্ট করার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় আরহান সিং লেখেন, আনুশকার ব্যবহার দেখে তিনি রীতিমতো অবাক! আরহান লিখেছিলেন, 'এই পোস্ট থেকে কোনো প্রচার পাওয়ার উদ্দেশ্য আমার নেই। বিষয়টি ভয়ঙ্কর! গাড়ি চালাতে গিয়ে অসচেতন ভাবে আমি এটা ছোট প্লাস্টিক রাস্তায় ফেলেছিলাম। আচমকাই দেখি গাড়ি থামিয়ে আনুশকা শর্মা চিৎকার করছেন। আমার অসচেতনতার জন্য আমি ক্ষমা চাইছি। তবে আনুশকার ব্যবহারও অত্যন্ত নিন্দনীয়।'



মন্তব্য