kalerkantho


তীব্র সমালোচনার পরও অনড় ট্রাম্প

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ জুন, ২০১৮ ২২:০২



তীব্র সমালোচনার পরও অনড় ট্রাম্প

অভিবাসী ইস্যুতে জিরো টলারেন্স নীতির তীব্র সমালোচনার পরও অনঢ় অবস্থানে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। বিরোধী দল বা জাতিসংঘের পরোয়া না করে উল্টো সমালোচনা করছেন ইউরোপের। সোমবার হোয়াইট হাউজে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র শরণার্থী শিবির নয়।

একদিকে যখন শরণার্থীদের আশ্রয় দিতে হিমশিম খাচ্ছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন তখন অভিবাসীদের বের করে দিতে কঠোর অবস্থানে ট্রাম্প প্রশাসন।

অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে এ পর্যন্ত প্রায় দুই হাজার শিশুকে তাদের মা-বাবার কাছ থেকে আলাদা করার অভিযোগ তোলেন ডেমোক্রেট নেতারা। একইসঙ্গে এর নিন্দা জানান অ্যাটর্নি জেনারেল জেফ সেশন্সও।

পরিবারের কাছ থেকে সন্তানদের আলাদা করায় ট্রাম্পের তীব্র সমালোচনা করেন জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তনিও গুতেরেস।

সংস্থার মানবাধিকার প্রধান জিয়াদ রাদ আল হুসেইন বলেন, এ ধরনের পদক্ষেপ অগ্রহণযোগ্য ও অপরাধের সামিল।

তবে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা সেক্রেটারি ক্রিস্টেন নেলসেন বলছেন, এ ধরনের কর্মকাণ্ডে মোটেও অনুতপ্ত নন তারা।

এতো সমালোচনার পরেও ট্রাম্প জানান, নিরাপত্তার স্বার্থে অভিবাসন ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র এক চুলও ছাড় দেবে না। পাল্টা অভিযোগ তোলেন ওবামা প্রশাসনই এ সংকটের জন্য দায়ী। 

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প বলেন, পরিস্কারভাবে বলতে চাই, যুক্তরাষ্ট্রের বেশিরভাগ সংকট...অভিবাসনের কারণেই হয়েছে। এ নিয়ে কোনো সমঝোতা হবে না। ডেমোক্রেটরা কোন ধরনের সহায়তা না করায় নীতি নির্ধারণ করা যাচ্ছে না।

এর আগে এক টুইট বার্তায় ইউরোপের অভিবাসন নীতিতে জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মের্কেলেরও কঠোর সমালোচনা করেন ট্রাম্প। বলেন, শরণার্থীদের জায়গা দেয়ায় অপরাধ বেড়েছে পুরো ইউরোপে।



মন্তব্য